প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

গফরগাঁওয়ে গৃহকর্মীকে ধর্ষণ, অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়লে গুম

আজহারুল হক, ময়মনসিংহ: ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে কলেজ প্রদর্শক তার বাড়ির ১৩ বছর বয়েসী এক গৃহকর্মীকে ধর্ষণ করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। ধর্ষণের ফলে ওই কিশোরী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েছে।

অভিযুক্ত রফিকুল সরকার উপজেলার কান্দিপাড়া আব্দুর রহমান ডিগ্রী কলেজের প্রদর্শক। এক পর্যায়ে বিষয়টি জানাজানি হয়ে গেলে ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে অভিযুক্ত রফিকুল মেয়েটিকে গুম করে ফেলে। মেয়েটি এখন কোথায় কি অবস্থায় আছে তা তার পরিবার ও পুলিশ কেউ বলতে পারছে না। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়ভাবে বিচার সালিসের নাম করে সালিসকারীরা অভিযুক্তের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলেও অভিযোগ করেছেন স্থানীয়রা।

স্থানীয় বাসিন্ধা নূরুল হকসহ নাম প্রকাশে আরো বেশ কয়েকজনের সাথে কথা বললে তারা জানান, হত দরিদ্র রুবেল মিয়ার কিশোরী কন্যা প্রায় তিন বছর ধরে কলেজ প্রদর্শক রফিকুল সরকারের বাড়িতে গৃহকর্মীর কাজ করে আসছে। আর এই সুযোগে রফিকুল ওই গৃহকর্মীকে ভয়ভীতি প্রদর্শন করে একাধিকবার ধর্ষণ করে। এতে করে কিশোরী অন্তঃসত্বা হয়ে পড়ে।

স্থানীয় উস্থি ইউপি চেয়ারম্যাই নজরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ঘটনা ধামাচাপা দিতে ধর্ষক মেয়েটিকে লুকিয়ে রেখে নিজেও মুঠোফোন বন্ধ করে গাঁ ঢাকা দিয়েছে।

আব্দুর রহমান ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ কায়সার আহমেদ বলেন, ঘটনাটি লোক মুখে শুনেছি। এখন তাকেও পাওয়া যাচ্ছে না। তাকে পাওয়া গেলে সে কি এ ঘটনা ঘটিয়েছে কিনা তা সঠিকভাবে জানা সম্ভব হতো। তারপরেও ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত হতে চেষ্টা চলছে। অভিযোগ প্রমানিত হলে অবশ্যই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ ব্যাপারে পাগলা থানার ওসি মোখলেছুর রহমান বলেন, স্থানীয়রা আমাকে ঘটনাটি মৌখিকভাবে জানিয়েছেন। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত