প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কোচিং বাণিজ্য
রাজধানীর ২৫ স্কুল শিক্ষক বদলি

ডেস্ক রিপোর্ট : কোচিং বাণিজ্যে সম্পৃক্ত থাকায় রাজধানীর পাঁচটি সরকারি বিদ্যালয়ের ২৫ জন শিক্ষককে বিভিন্ন জেলায় বদলি করেছে সরকার। দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সুপারিশে তাদের বিরুদ্ধে এ ব্যবস্থা নেয়া হলো। গতকাল মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর এক আদেশে বদলি হওয়া শিক্ষকদের ২রা ফেব্রুয়ারির মধ্যে তাদের পুরনো কর্মস্থল ছাড়ার নির্দেশ দেয়। ওইসব শিক্ষকরা সরাসরি কোচিং বাণিজ্যের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন বলে প্রমাণ পায় দুদক।

অধিদপ্তরের মহাপরিচালক প্রফেসর মো. মাহাবুবুর রহমান স্বাক্ষরিত ওই আদেশে মতিঝিল সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ের ১২ জন, মতিঝিল সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের তিনজন, সরকারি ল্যাবরেটরি হাই স্কুলের আটজন এবং নিউ গভর্নমেন্ট হাই স্কুল ও খিলগাঁও সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের একজন করে শিক্ষককে বদলি করা হয়। তাদেরকে ঢাকার বাইরে বগুড়া, শরীয়তপুর, গোপালগঞ্জ, নেত্রকোনা, ফরিদপুর, গাইবান্ধা, সাতক্ষীরা, চাঁপাই নবাবগঞ্জ, মেহেরপুর, মুন্সীগঞ্জ, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, চাঁদপুর, জামালপুর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, হবিগঞ্জ, পিরোজপুর, বরগুনা ও জয়পুরহাটের সরকারি বিভিন্ন স্কুলের শূন্য পদে বদলি করা হয়েছে।

এর আগে বছরের পর বছর ধরে এক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে কোচিং বাণিজ্যের মাধ্যমে অর্থ উপার্জনের অভিযোগে রাজধানীর আট প্রতিষ্ঠানের ৯৭ জন শিক্ষকের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়ার সুপারিশ করেছিল দুদক।

গত বছরের ডিসেম্বরে সেসব প্রতিষ্ঠানের প্রধান, পরিচালনা পর্ষদ এবং মন্ত্রিপরিষদ সচিবকে দুদকের পক্ষ থেকে চিঠিও পাঠানো হয়েছিল। ওই চিঠিতে বলা হয়েছিলো, এমপিওভুক্ত চারটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৭২ জন শিক্ষক এবং সরকারি চারটি বিদ্যালয়ের ২৫ জন শিক্ষক কোচিং বাণিজ্যে যুক্ত বলে দুদক প্রমাণ পেয়েছে। দুদক বলছে, দীর্ঘদিন একই প্রতিষ্ঠানে থেকে এই শিক্ষকরা কোচিং বাণিজ্যে জড়িয়েছেন এবং অনৈতিকভাবে অর্থ উপার্জন করে আসছেন। মানবজমিন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত