প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শিশু হত্যার অভিযোগে সৎ মা’য়ের আত্মহত্যার চেষ্টা

মোঃ জয়নুল আবেদীন, আমতলী (বরগুনা): বরগুনার তালতলীতে রাব্বি (৯) নামের এক শিশুর লাশ বাড়ীর পুকুর পাড় থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ শিশু পুত্রকে হত্যার অভিযোগ করায় সৎ মা চম্পা বেগম হুইল ওয়াশিং পাউডার খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছে।

সোমবার উপজেলার বড়বগী ইউনিয়নের করমজাপাড়া গ্রামে এই ঘটনা ঘটেছে ।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, দুই সতীন চম্পা ও পপির মধ্যে শুরু হয় পারিবারিক কলহ। চম্পা পারিবারিক কলহের এক পর্যায় পপি ও তার সন্তানদের হত্যার হুমকি দেয়।

রবিবার রাতে পপি তার পুত্র রাব্বি ও কন্যাকে নিয়ে জানালার পাশের খাটে এবং সোহরাফ হোসেন প্রথম স্ত্রী চম্পা ও তার সন্তানদের নিয়ে আলাদা খাটে ঘুমিয়ে ছিলেন।

সোমবার ভোরে পপি বেগমের ঘুম ভাঙ্গলে তার সন্তান রাব্বিকে না পেয়ে চিৎকার দেয়। পরে তাকে (রাব্বি) নিজ বাড়ীর পুকুর পাড়ে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। তবে রাব্বির গায়ে কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। রাব্বি হত্যার জন্য পপি বেগম তার সতীন চম্পাকে দায়ী করেন। এ সময় সৎ মা চম্পা হুইল ওয়াশিং পাউডার খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে।

এক পর্যায় গুরুতর অবস্থায় চম্পাকে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

নিহত শিশু রাবিবর মা পপি বেগম অভিযোগ করে বলেন, আমার শিশু পুত্রকে আমার সতিন চম্পা পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে। আমি এ ঘটনার বিচার চাই।

তালতলী থানার ওসি পুলক চন্দ্র রায় বলেন, রাব্বিকে তাদের বাড়ীর পুকুর পাড় থেকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে। তবে তার গায়ে কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সৎ বাবা সোহরাফ হোসেনকে থানায় আনা হয়েছে। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে। সম্পাদনা: উমর ফারুক রকি

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত