প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বাইরে তালা দিয়ে ভেতরে ক্লাস নেওয়া হচ্ছে কোচিংয়ে

মাইকেল : কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশনা মানছেন না অনেকেই। সরকারের নির্দেশ অমান্য করে এসএসসি পরীক্ষার আগে অনেক কোচিং সেন্টারই তাদের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে। অনেক কোচিং সেন্টারের সামনে ঝুলছে বন্ধের বিজ্ঞপ্তি। কোনোটিতে আবার বাইরে তালা ঝুলিয়ে ভেতরে ক্লাস নেয়া হচ্ছে।

রোববার সরেজমিন রাজধানীর বিভিন্ন কোচিং সেন্টারে গিয়ে এমন চিত্র দেখা গেছে।

আগামী ১ ফেব্রম্নয়ারি থেকে শুরম্ন হতে যাচ্ছে মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমান পরীক্ষা। পরীক্ষায় প্রশ্ন ফাঁস রোধে গত বৃহস্পতিবার শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে জরম্নরি সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। সেখানে শিক্ষামন্ত্রী নুরম্নল ইসলাম নাহিদ এসএসসি পরীক্ষা শুরম্নর সাত দিন আগে থেকে কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দেন। সে অনুযায়ী গত শুক্রবার থেকে দেশের সব কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকার কথা থাকলেও অনেকেই সে নির্দেশনা অমান্য করে তাদের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন।

সরেজমিন দেখা যায়, রাজধানীর ইন্দিরা রোডে ২৭/এ কনফিডেন্স কোচিং সেন্টার বাইরে থেকে বন্ধ রেখে ভেতরে ক্লাস চলছে। সেখানে আটজন শিক্ষার্থী ক্লাস করছিলেন। ক্লাসের শিক্ষক আমিনুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখা হয়েছে। তবে জরম্নরি ক্লাস থাকায় কয়েকজন শিক্ষার্থীকে নিয়ে প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে।’ এ কথা বলে তিনি ক্লাস থেকে সটকে পড়েন।

শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে জানতে চাইলে তারা বলেন, ‘কোচিং সেন্টার বন্ধ, তবে আমাদের অনুরোধে স্যার ক্লাস নিতে এসেছেন।’ এ নিয়ে তারা সংবাদ প্রকাশ না করারও অনুরোধ জানান।

অপরদিকে, ইন্দিরা রোডের ৩৫/৩ নম্বর বাড়ির নিচতলায় গড়ে উঠেছে গেস্নাবাল কোচিং সেন্টার। প্রতিষ্ঠানের ভেতর গিয়ে দেখা যায়, অন্ধকার ফ্ল্যাটের ভেতর লাইট জ্বালিয়ে দুটি কক্ষে ১৫ জন শিক্ষার্থী নিয়ে কোচিং ক্লাস চলছে। নিয়মিত ভর্তি কার্যক্রমও চলছে সেখানে।
কোচিং সেন্টারের ম্যানেজার সালাউদ্দিনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, গেস্নাবাল কোচিং সেন্টার একাডেমিক নয়, ল্যাঙ্গুয়েজ শিক্ষা সেন্টার। সরকার একাডেমিক কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে, তবে ল্যাঙ্গুয়েজ ক্লাবগুলো নয়। এ কারণেই আমাদের কোচিং সেন্টারের কার্যক্রম চালু রাখা হয়েছে।

মিরপুর-১০ নম্বরের ৬৩ সেনপাড়ার বাড়ির পাঁচতলা ভবনে ভূঁইঞা কোচিং সেন্টারে গিয়ে দেখা যায়, এই কোচিং সেন্টারের এক অংশ বন্ধ রেখে অন্য অংশে একাধিক কোর্সের ক্লাস নেয়া হচ্ছে। তিনটি ক্লাসে প্রায় ৫০ জনের মতো শিক্ষার্থী সে সময় উপস্থিত ছিলেন।

কোচিং সেন্টারের ম্যানেজার জব্বার ভূঁইঞা বলেন, ‘সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী এসএসসি পরীক্ষার আগ পর্যন্ত্ম কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখা হয়েছে। তবে কয়েকজন শিক্ষার্থীকে নিয়ে প্রস্তুতিমূলক ক্লাস করানো হচ্ছে। নতুন ভর্তি ও ক্লাস কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। শিক্ষার্থীদের কথা চিন্ত্মা করেই শুধু পরীক্ষার প্রস্তুতিমূলক কয়েকটি ক্লাস নেয়া হচ্ছে।’

সরকারের নির্দেশনা অমান্য করে রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় কোচিং সেন্টারে এ রকম কার্যক্রম চলতে দেখা গেছে।

অন্যদিকে, সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী গত শুক্রবার থেকে নামিদামি কোচিং সেন্টারগুলো বন্ধ রাখা হয়েছে। অনেকে প্রতিষ্ঠানের সামনে বন্ধের বিজ্ঞপ্তি লাগিয়ে দিয়েছেন। কেউ আবার কালো ব্যানারেও এমন নোটিশ ঝুলিয়ে রেখেছেন। তবে সব নোটিশেই উলেস্নখ করা হয়েছে, শিক্ষামন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী পরীক্ষা চলাকালীন কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখা হচ্ছে।

কোচিং সেন্টার বন্ধের দায়িত্বে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) যুগ্ম কমিশনার শেখ নাজমুল আলম বলেন, শিক্ষা মন্ত্রণালয় সব কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে। এসএসসি পরীক্ষা চলাকালীন দেশের সব কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখতে হবে। যদি কেউ এর ব্যত্যয় ঘাঁয়, তবে সেসব কোচিং সেন্টারের বিরম্নদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

তিনি বলেন, সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী সব কোচিং সেন্টারই বন্ধ থাকবে। তবে যারা শুধু ল্যাঙ্গুয়েজ কোর্স করাবে, তাদের জন্য এই আইন শিথিল থাকবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত