প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মোস্ট ওয়ান্টেড গেরিলা থেকে কলম্বিয়ার প্রেসিডেন্ট প্রার্থী রদ্রিগো

পরাগ মাঝি : এক সময় কলম্বিয়ার প্রশাসনের মোস্ট ওয়ান্ডেট তালিকার এক নম্বরে ছিলেন রদ্রিগো লন্ডনো। কিন্তু এখন তিনি দেশটির প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে অংশ নিতে যাচ্ছেন। এক সময় জঙ্গলে জঙ্গলে বিদ্রোহী অস্ত্রধারীদের নিয়ে ঘুরে বেড়ানো লন্ডনোকে সবাই তিমোশেঙ্কো নামেই চিনতো। এক সময়ে মূর্তিমান আতঙ্ক ফার্ক বিদ্রোহীদের এই নেতার নেতার জন্য গত শনিবারটি ছিলো অন্যরকম। এদিন সমর্থকরা তার বড় বড় ছবি সম্বলিত ব্যানার-ফ্যাস্টুন নিয়ে নেমে আসে রাজধানী বোগোটার রাস্তায়। কারণ দেশটির আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তিনি প্রার্থীতার ঘোষণা দিয়েছেন। বগোটার ফাইভ স্টার হোটেল থেকে তিনি তার নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেন।

প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার ঘোষণা দিয়ে লন্ডনো বলেন, ‘একটি নতুন কলম্বিয়ার জন্ম দিতে আমি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। এমন এক সরকার গঠন করতে চাই, যা গরীব মানুষের সুবিধাগুলো নিয়ে কাজ করবে।’

প্রার্থীতা ঘোষণার পরই লন্ডনোর সমর্থকরা গান গাইতে শুরু করেন, ‘প্রেসিডেন্ট টিমো, মানুষের জন্য’।

কিউবার মধ্যস্থতায় চার বছর ধরে এক শান্তি আলোচনার পর ২০১৬ সালে ফার্ক বিদ্রোহীদের সঙ্গে কলম্বিয়া সরকারের এক ঐতিহাসিক চুক্তির মাধ্যমে জঙ্গুলে জীবনের সমাপ্তি ঘটান লন্ডনো। অর্ধ শতাব্দীরও বেশি সময় ধরে ফার্ক বিদ্রোহীরা কলম্বিয়ার সেনাবাহিনীর সঙ্গে যুদ্ধে লিপ্ত ছিলো। দেশটির বর্তমান প্রেসিডেন্ট জুয়ান ম্যানুয়েল স্যান্তোস এই যুদ্ধের অবসান ঘটাতে সবচেয়ে বড় ভূমিকা রাখেন এবং ফার্ক বিদ্রোহীদের রাজনীতির মাঠে লড়াই করার সুযোগ করে দেন।

বিশ্লেষকরা বলছেন, প্রার্থীতার ঘোষণা দিলেও বিজয়ী হতে কঠিন পথ পাড়ি দিতে হবে লন্ডনোকে। দেশটির গরীব মানুষদের মধ্যে বামপন্থী ফার্কদের প্রভাব থাকলেও বছরের পর বছর ধরে নির্মম গণহত্যা ও বিশৃঙ্খলার জন্য কলম্বিয়ার মানুষের একটি বড় অংশ তাদের ভালো চোখে নিচ্ছেনা। ভয়েজ অব আমেরিকা

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ