প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ব্রণের ক্ষত চিহ্ন দূর করুন ঘরোয়া উপায়ে

হাসান: আজকাল মুখে ব্রণ নেই এমন মানুষের সংখ্যা বিরল। আর মুখে ব্রণ হওয়া মানে মুখে এক বিচ্ছিরি কালো দাগ। তার সঙ্গে আছে ব্রণের ক্ষত। ব্রণ নানা বয়সে হতে পারে। তবে বিশেষ করে টিনেজারদের এই সমস্যা বেশি হয়। অনেক সময় দেখা যায় ব্রনের দাগ চলে গেলেও তার ক্ষতের দাগ রয়ে যায়। অনেক দামি দামি ক্রিম ব্যবহার করেও এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায় না। তাই ব্রণের ক্ষতের দাগ সারানোর কিছু ঘরোয়া উপায় দেওয়া হল।

চিনি দিয়ে স্ক্রাব:

ত্বকে ব্রনের দাগ থাকলে চিনি ব্যবহার করতে পারেন। চিনি ব্রণের দাগ রোধ করে। কারণ চিনিতে গ্লাইকলিক অ্যাসিড ত্বকের মৃত কোষ সরিয়ে নতুন কোষ তৈরিতে সাহায্য করে। পরিমাণ মতো চিনি নিয়ে তাতে সামান্য অলিভ ওয়েল ও লেবুর রস মিশিয়ে একটি মিশ্রণ বানিয়ে নিন। তারপর এই মিশ্রণ দিয়ে ত্বকে ম্যাসাজ করুন। ১০ থেকে ১৫ মিনিট পর মুখ ধুয়ে ফেলুন। এর পর হালকা কোনও ময়েশ্চারাইজার লাগান। কিন্তু তেলতেলে কোনও ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করবেন না। সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার এই মিশ্রণটি ব্যবহার করুন।

ভিটামিন E তেল:

ব্রনের ক্ষতের দাগ সারানোর জন্য আর একটি কার্যকরী সমাধান হল ভিটামিন E তেল। প্রতিদিন অল্প পরিমাণে ভিটামিন E তেল ব্যবহার করুন। এটি ব্রণের কালো দাগ তুলতে সাহায্য করে। প্রথমে মুখটি ফেসওয়াশ দিয়ে ভালো করে পরিষ্কার করে নিন। তারপর একটা পরিষ্কার পিন দিয়ে ভিটামিন E ক্যাপসুলটি ফুটো করে ভেতরের তেলটি মুখে লাগিয়ে নিন। ত্বক যদি বেশি তৈলাক্ত হয় তাহলে আধ ঘণ্টা পর টিস্যু পেপারে ত্বক মুছে নিন। ত্বক স্বাভাবিক থাকলে সারা রাত তেলটি লাগিয়ে রাখতে পারেন।

লেবু:

লেবুর শরবত নিয়মিত খেলে এটি আপনার দেহের মৃত কোষ দূর করে ব্রণের দাগ হালকা করতে সাহায্য করে। একটি মাঝারি আকারের লেবুর রস জলের সঙ্গে মিশিয়ে মুখে ঘষুন। এতে ব্রণের দাগ হালকা হবে।

আলুর রস:

আলু সব রকমের কালো দাগ থেকে মুক্তি দেয়। ত্বক থেকে ব্রণের ক্ষতের দাগ সারাতে আলুর রস ব্যবহার করুন। আলু কেটে সেটিকে থেতো করুন এবার একটি পরিষ্কার কাপড়ে সেই আলুর রস নিয়ে ত্বকে লাগিয়ে রাখুন। ১৫ মিনিট বাদে হালকা গরম জলে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

বরফ কুচি:

বরফ কুচির ব্যবহারে ব্রণের ক্ষতের দাগ হালকা হয়। একটি পরিষ্কার পাতলা কাপড়ে বা তুলোতে করে বরফের টু্করো নিয়ে ব্রণের ক্ষতে ১৫ থেকে ২০ মিনিট ঘষতে থাকুন। এতে ব্রণের দাগ হালকা হয়।

টম্যাটো:

ব্রণের ক্ষত সারাতে টম্যাটোর জুড়ি মেলা ভার। টম্যাটোতে আছে ভিটামিন A। যা ব্রণ ও ব্রণের দাগ দুটোই সারিয়ে তোলে। মাঝারি আকারের টাটকা টম্যাটো নিন। সেটিকে মাঝখান থেকে কেটে নিন। এবার এটি গালে প্রথমে ম্যাসাজ করুন। এতে যেমন ব্রণের গর্তের দাগ হালকা হবে। তেমনি ত্বকের অন্যান্য কালো দাগ তুলতেও এটি সাহায্য করে।

মধু:

নিয়মিত মধু ব্যবহারের ফলে ত্বক যেমন উজ্জ্বল, তেমনি এটি ব্রণের দাগ সারাতেও সাহায্য করে।

অ্যালোভেরা রস:

অ্যালোভেরা রস সর্বদাই আমাদের ত্বকের জন্য ভালো। এটি ত্বককে যেমন উজ্বল করে তোলে তেমনি ত্বককে নানা সমস্যা থেকে মু্ক্তি দেয়। অ্যালোভেরা রস যদি টাটকা হয় তাহলে তা খুবই ভালো। প্রথমেই একটি অ্যালোভেরার পাতা নিয়ে তা থেকে অ্যালোভেরা রস বার করে নিন। এবার এটি ত্বকের উপর লাগাতে পারেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত