প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বাংলাদেশকে ২২২ রানের টার্গেট দিয়েছে শ্রীলঙ্কা

সারোয়ার জাহান: ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা খুব ঝড়ো গতিতেই করেছিল শ্রীলঙ্কা। ২২ ওভারের মধ্যেই স্কোরবোর্ডে জমা করে ফেলেছিল ১০০ রান। কিন্তু পরে দারুণ বোলিং করে লঙ্কানদের রান সংগ্রহের গতি অনেকটাই কমিয়ে এনেছিলেন মুস্তাফিজ-মাশরাফিরা। উপুল থারাঙ্গা, নিরোশান ডিকওয়েলা ও দিনেশ চান্দিমালের লড়াকু ব্যাটিংয়ে ভর করে শেষপর্যন্ত লঙ্কান স্কোরবোর্ডে জমা হয়েছে ২২১ রান। ফলে প্রথমবারের মতো বড় কোনো শিরোপা জয়ের জন্য বাংলাদেশকে করতে হবে ২২২ রান।

ফাইনালের জন্য দলে এসেছেন মেহেদী হাসান মিরাজ। শুরুতে বল হাতে নিয়ে নিজের যোগ্যতাও দারুণভাবে প্রমাণ করেছেন এই অফস্পিনার। তৃতীয় ওভারেই সাজঘরমুখী করেছেন গুনাথিলাকাকে। ষষ্ঠ ওভারে ৯ বলে ২৮ রান করা কুশল মেন্ডিসের উইকেট তুলে নিয়েছেন অধিনায়ক মাশরাফি।

প্রথম ছয় ওভারের মধ্যেই দুই উইকেট হারিয়ে শুরুতেই কিছুটা চাপের মুখে পড়েছিল শ্রীলঙ্কা। কিন্তু তৃতীয় উইকেটে ৭১ রানের জুটি গড়ে প্রাথমিক ধাক্কা ভালোভাবেই সামলে নিয়েছিলেন্ নিরোশান ডিকওয়েলা ও উপুল থারাঙ্গা। অবশেষে ২৪তম ওভারে এসে এই প্রতিরোধ ভেঙেছেন মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন। ৪২ রান করে ফিরে গেছেন ডিকওয়েলা। ওপেনার উপুল থারাঙ্গা অবশ্য আরও বেশ কিছুক্ষণ ভুগিয়েছেন বাংলাদেশের বোলারদের। শেষপর্যন্ত ৩৬তম ওভারে এসে সফলতা পেয়েছেন মুস্তাফিজ। ৫৬ রান করা থারাঙ্গাকে আউট করে কিছুটা স্বস্তি ফিরিয়েছেন বাংলাদেশ শিবিরে।

থারাঙ্গা আউট হওয়ার পর থেকেই রানের চাকা ধীরে ঘুরিয়েছে শ্রীলঙ্কা। দুই বিপদজনক ব্যাটসম্যান থিসারা পেরেরা ও আসেলা গুনারত্নেকেও বেশিক্ষণ উইকেটে থাকতে দেননি রুবেল হোসেন। শেষপর্যায়ে অধিনায়ক দিনেশ চান্দিমালের ৪৫ ও আকিলা ধনঞ্জয়ের ১৭ রানের ইনিংসে ভর করে স্কোরবোর্ডে ২২১ রান জমা করেছে লঙ্কানরা।

বাংলাদেশের পক্ষে দারুণ বোলিং করে নজর কেড়েছেন দুই পেসার রুবেল হোসেন ও মুস্তাফিজ। চারটি উইকেট গেছে রুবেলের ঝুলিতে। আর ১০ ওভার বল করে মাত্র ২৯ রানের বিনিময়ে দুটি উইকেট নিয়েছেন মুস্তাফিজ।

ঘরের মাটিতে এর আগে তিনটি বিশ্বকাপের ফাইনালে হারের স্বাদ নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছিল বাংলাদেশকে। তিন তিনবার শিরোপার খুব কাছাকাছি গিয়েও হতাশ হতে হয়েছিল সাকিব-মাশরাফিদের। এবারের ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে সেই আক্ষেপ ঘোঁচানোর লক্ষ্য নিয়ে মাঠে নামছে টাইগাররা। শুরুতেই টস হেরে ফিল্ডিংয়ে নামতে হয়েছে মাশরাফি বাহিনীকে।

ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম তিনটি ম্যাচে দাপুটে জয় দিয়ে ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছিল বাংলাদেশ। তবে শেষ ম্যাচে মাত্র ৮২ রানে গুটিয়ে গিয়ে ১০ উইকেটে হারের মুখ দেখেছে টাইগাররা। অন্যদিকে নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচে হেরে গেলেও শেষ দুই ম্যাচে জিতে ফাইনালের টিকিট পেয়েছে শ্রীলঙ্কা।

ফাইনালের দলে বেশ কয়েকটি পরিবর্তন এনেছে বাংলাদেশ। দলে এসেছেন মোহাম্মদ মিথুন, মেহেদী হাসান মিরাজ। বাদ পড়েছেন এনামুল হক বিজয়, নাসির হোসেন। অন্যদিকে শ্রীলঙ্কা দলে আছে একটি পরিবর্তন। লক্ষন সান্দাকানের পরিবর্তে দলে এসেছেন সেহান মধুশঙ্কা। বাংলাদেশের বিপক্ষে এই ম্যাচ দিয়েই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হতে যাচ্ছে এই লঙ্কান ক্রিকেটারের।

বাংলাদেশ দল : তামিম ইকবাল, মোহাম্মদ মিথুন, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ, সাব্বির রহমান, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন, মেহেদী হাসান মিরাজ, মাশরাফি বিন মুর্তজা, মুস্তাফিজুর রহমান ও রুবেল হোসেন।

শ্রীলঙ্কা দল : উপুল থারাঙ্গা, ধনুস্কা গুনাথিলাকা, কুশাল মেন্ডিস, দিনেশ চান্দিমাল, নিরোশান ডিকওয়েলা, আসেলা গুনারত্নে, থিসারা পেরেরা, আকিলা ধনঞ্জয়, সুরঙ্গা লাকমল, দুষ্মন্ত চামিরা ও সেহান মধুশঙ্কা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত