প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

হত্যাকারিকে ধরেছে জয়নাবের আত্মীয়রা, নেপথ্যে মন্ত্রী-সমর্থিত শিশু পর্নোগ্রাফি চক্র?

মরিয়ম চম্পা ও ওমর শাহ: জয়নাব-এর হত্যাকারী – ধর্ষক ইমরানকে ধরেছে তার পরিবার ও আত্মীয়রা, তবে খুনের নেপথ্যে মন্ত্রী-সমর্থিত শিশু পর্নোগ্রাফি চক্র কাজ করছে কিনা তা তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে দেশটির আদালত। পাকিস্তানে সাত বছর বয়সী শিশু জয়নাবকে ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনায় টিভি উপস্থাপক ড. শহিদ মাসুদের অভিযোগ আমলে নিয়ে আদালত পাঞ্জাব পুলিশকে এ আদেশ দেয়। ড. শহিদের দাবি অনুযায়ী জয়নাব হত্যার প্রধান সন্দেহভাজন ইমরান পাকিস্তানের একজন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসহ প্রভাবশালী এক গোষ্ঠীর সমর্থনপুষ্ট। ছড়িয়ে পড়া এক হোয়াট’স অ্যাপ মেসেজেও দাবি করা হচ্ছে, স্থানীয় একজন পার্লামেন্ট সদস্য কাসুর পর্ন ইন্ডাস্ট্রির মূল হোতা।
এদিকে জয়নবের বাবা বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, তিনি এবং তার আত্মীয়রা মিলে সন্দেহভাজন সিরিয়াল কিলার ইমরান আলীকে ধরে পুলিশে দিয়েছেন। তদন্তকারী পুলিশ কর্মকর্তারা ইমরানকে ধরতে পারেননি। এসময় জয়নাবের বাবা একটি ছবি দেখান। সেখানে সন্দেহভাজনকে একটি বিছানায় বিশ্রামের ঢংয়ে বসে থাকতে দেখা যায়।
সংবাদ সম্মেলনে আইজীবী আফতাব বাজওয়া মুখ্যমন্ত্রী শেহবাজের জে আই টি সদস্যদের জন্য এক কোটি রুপি পুরস্কার ঘোষণার সমালোচনা করে বলেন, জয়নবের খুনীকে পুলিশ গ্রেফতার করতে ব্যর্থ হয়েছে।
গত ৪ জানুয়ারি পাঞ্জাবের কাসুর শহর থেকে ৬ বছরের শিশু জয়নাবকে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়। ৯ জানুয়ারি শিশুটির মৃতদেহ মেলে শাহবাজ খান রোডের আবর্জনার স্তূপ থেকে। ময়নাতদন্তে দেখা গেছে ধর্ষণের পর শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। স্কাই নিউজ, ডেইলি পাকিস্তান, ডন উর্দু

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত