প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ভারতের বিশ্ববিদ্যালয়ের চত্বরে স্থান পেয়েছে মুক্তিযুদ্ধে ব্যবহৃত ট্যাঙ্ক

ওমর শাহ: ভারতের উত্তর প্রদেশের মুহাম্মদ আলি জওহর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাঙ্গনে স্থান পেয়েছে ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে ব্যবহৃত টি-৫৫ ব্যাটেল ট্যাঙ্ক । মুক্তিবাহিনীর সমর্থণে এ ট্যাঙ্কটি পাক সেনাদের বিরুদ্ধে ব্যবহার করেছিল ভারতীয় সেনারা। সমাজবাদী পার্টির নেতা আজম খানের অনুরোধে ট্যাঙ্কটি বিশ্ববিদ্যালয়কে উপহার হিসাবে দেন ভারতীয় সেনা প্রধান বিপিন রাওয়াত।

মুহাম্মদ আলি জওহর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য আজম খান। তিনি গত বছর সেনাপ্রধানের কাছে ট্যাঙ্কটি বিশ্ববিদ্যালয়কে দেওয়ার অনুরোধ করেছিলেন। সেই প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী অবশেষে মুহাম্মদ আলি জওহর বিশ্ববিদ্যালয়ে এই যুদ্ধ ট্যাঙ্কটি মহারাষ্ট্রের আহমেদনগর থেকে রামপুর পাঠালেন বিপিন রাওয়াত। ১৯৬৮ থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত এই ট্যাঙ্কটি ভারতীয় সেনারা বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ যুদ্ধে ব্যবহার করতেন।

উত্তর ভারতের জেনারেল অফিসার কমান্ডিং লেফটেন্যান্ট জেনারেল হরিশ থুকরাল মুহম্মদ আলি জওহর বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি বার্ষিক অনুষ্ঠানে এই ট্যাঙ্কটি হস্তান্তর করেন। এসময় তিনি বলেন, এই ক্যাম্পাস চত্বরেই এই যুদ্ধের ট্যাঙ্কটি রাখা হবে। যার ফলে দেশের যুবসমাজ প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে যোগদানে উৎসাহিত হবেন। দেশকে রক্ষার কাজে যুবসমাজকে উদ্বুদ্ধ করতেই এই ঐতিহ্যবাহী যুদ্ধ ট্যাঙ্কটি বিশ্ববিদ্যালয়ে রাখার পরিকল্পনা করা হয়েছে।

এই প্রসঙ্গে আজম খান জানিয়েছেন, তিনি রাজনৈতিক নেতা হলেও তিনি একজন দেশপ্রেমিক। ভারতীয় সেনাদেরকেও তিনি সম্মান করেন। এ কারণে শুধু এই যুদ্ধ ট্যাঙ্কই নয়, দেশের শিক্ষার্থীদের উদ্বুদ্ধ করতে বিশ্ববিদ্যালয়ের চত্বরে ভারতের বায়ুসেনার ব্যবহৃত ফাইটার জেট এবং হেলিকপ্টার রাখার ইচ্ছেও প্রকাশ করলেন আজম খান। সূত্র: উর্দু টাইমস

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত