প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

লালবাগ কেল্লার সীমানায় নির্মিত দুই বাড়ি উচ্ছেদ

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর পুরান ঢাকার লালবাগ কেল্লার সীমানা অবৈধভাবে দখল করার অভিযোগ ছিল দীর্ঘদিন ধরেই। বৃহস্পতিবার অবৈধভাবে গড়ে তোলা দুটি বাড়ি উচ্ছেদ করেছে ঢাকা জেলা প্রশাসন।

এ বিষয়ে ঢাকা জেলা প্রশাসনের ম্যাজিস্ট্রেট তৌহিদ এলাহী জানান, প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের সহযোগিতায় বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় এই অভিযান শুরু হয়।

দীর্ঘদিন মামলা চলার পর আইনি পদক্ষেপের মাধ্যমেই এ উচ্ছেদ অভিযান পরিচালিত হলো বলে জানিয়েছে প্রশাসনের পক্ষ থেকে।

এ বিষয়ে সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপসচিব অসীম কুমার দে জানান, ৬ দশমিক ২ শতক জায়গা জুড়ে থাকা বাড়ি দুটি নিয়ে দীর্ঘদিন মামলা চলছিল। ২০১৭ সালের ৩১ মে সুপ্রিম কোর্ট প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের পক্ষে রায় দেয়। সেখানে তিন মাসের মধ্যে স্থাপনা দুটি অপসারণের নির্দেশ দেওয়া হয়।

উচ্ছেদ করার আগে প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর যেন এ দুই বাড়ির মালিক হাজী মো. আবুল হাশেম ও মো. হারুনুর রশীদকে ৪০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়ার নির্দেশ দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট।

অসীম কুমার দে জানান, আবুল হাশেম তার ক্ষতিপূরণ বুঝে নিয়ে বিনা শর্তে বাড়ি ভাঙার কাজে সহযোগিতা করেছেন। কিন্তু হারুনুর রশীদ ক্ষতিপূরণ বাবদ তার ২২ লাখ ৫৮ হাজার ৬৪ টাকার চেক এখনো নেননি।

এদিকে বাড়ি ভাঙার সময় দেখা যায়, দুটো বাড়ির বেজমেন্টেই লালবাগ কেল্লার দেয়ালের ইট ব্যবহার করা হয়েছে, যা প্রত্নতত্ত্ব আইন অনুযায়ী শাস্তিযোগ্য অপরাধ।

প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের ঢাকা জেলার আঞ্চলিক পরিচালক রাখি রায় জানান, তারা এ বিষয়টি পরে খতিয়ে দেখবেন।

সর্বাধিক পঠিত