প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কুর্দি দমনে জার্মান ট্যাঙ্ক ব্যবহার করছে তুরস্ক, জার্মানিতে বিক্ষোভ

আনন্দ মোস্তফা: সিরিয়ায় কুর্দি বিরোধী অভিযানে জার্মানির তৈরি ‘লিপার্ড’ ট্যাঙ্ক ব্যবহার করছে তুরস্ক। গণমাধ্যমগুলোতে এমন খবর প্রকাশের পর জার্মানি জুড়ে প্রতিবাদের ঝড় শুরু হয়েছে। দেশটির বেশ কয়েকজন প্রভাবশালী রাজনীতিক তুরস্কের কাছে অস্ত্র বিক্রি বন্ধ করতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

তুরস্কে ব্যর্থ সেনা অভ্যুত্থানের পর থেকে জার্মানির সাথে দেশটির সম্পর্ক বিভিন্ন ইস্যুতে তিক্ত হতে শুরু করে। যদিও কয়েক সপ্তাহ আগেই তুরস্ক ও জার্মানির পররাষ্ট্রমন্ত্রী দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক উন্নয়নের ঘোষণা দিয়েছিলেন।

শনিবার তুরস্ক সেনাবাহিনী সিরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে কুর্দি অধ্যুষিত আফরিন শহরে হামলা শুরু করে। অভিযানের চার দিনে ২৬০ কুর্দি যোদ্ধা ও আইএস জঙ্গিকে হত্যার দাবি করেছে দেশটির সেনাবাহিনী। অন্যদিকে হামলায় বহু সংখ্যক বেসামরিক নাগরিকও নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছে বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠন।

স্থানীয় জার্মান একটি পত্রিকার প্রকাশিত খবরে জানা যায়, ‍জার্মান অস্ত্র নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠান রিহেইনমেটালকে ‘লিপার্ড-২’ ট্যাঙ্কটি আরও উন্নত করার অনুরোধ জানায় তুরস্ক। তুরস্কের অভিযানের সাম্প্রতিক ছবিগুলোতে দেখা গেছে ট্যাঙ্কটি কুর্দিদের বিরুদ্ধে ব্যবহার করা হচ্ছে।

কয়েকজন জার্মান রাজনীতিক বলেছেন, তুরস্কের সঙ্গে ট্যাঙ্ক আধুনিকায়নের যেকোনও ধরনের চুক্তি স্থগিত করা হোক। ডান ও বামপন্থী উভয় দলের রাজনীতিকরাই এই ট্যাঙ্ক আধুনিকায়নের প্রতিবাদ করেছেন। এছাড়া তারা তুরস্কের এই অভিযানে জার্মান সরকারের অবস্থান পরিস্কার করারও দাবি জানান।

এ দিকে জার্মান পররাষ্ট্রমন্ত্রী সিগমার গ্রাবিয়েল সোমবার বলেছেন, আফরিন অভিযানে মানবিক বিপর্যয়ের বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশের জন্য তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলবেন। বিবিসি

সর্বাধিক পঠিত