প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চীনের বিরুদ্ধে ভূমিদখলের অভিযোগ আনলেন মালদ্বীপের সাবেক প্রেসিডেন্ট

সান্দ্রা নন্দিনী: মালদ্বীপের সাবেক নির্বাসিত প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ নাশিদ বলেছেন, ভারত সাগরে চীনের ভূমিদখল মালদ্বীপের শান্তি ও স্থিতিশীলতা বিঘ্নিত করছে। মালদ্বীপে এবছরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে অংশ নিতে লড়াই করে চলা নাশিদ সোমবার এ অভিযোগ তুলে ধরেন।
শ্রীলঙ্কা আয়োজিত একটি সংবাদ সম্মেলনে নাশিদ বলেন, একের পর এক ভূমিদখলের ঘটনা কেবল মালদ্বীপ নয়, পুরো ভারত সাগরীয় অঞ্চলের শান্তি ও স্থিতিশীলতার জন্য হুমকিস্বরূপ। একটি বড় শক্তি পুরো মালদ্বীকেই কিনে নিতে রীতিমত মুখিয়ে রয়েছে। এর প্রেক্ষিতে কলম্বোর সাংবাদিকরা সেই ‘বড় শক্তি’র নাম জানতে চাইলে নাশিদ বলেন, সেই বড় শক্তি হল, চীন।
নাশিদ বলেন, চীন যে প্রক্রিয়ায় দ্বীপগুলো কিনছে তাতে ভূমিক্রয় সংক্রান্ত আইনের কোনও তোয়াক্কাই করা হচ্ছে না। এমনকী, কত টাকায়, কী পরিমাণ ভূমি ক্রয় করা হচ্ছে সেবিষয়ে কোনও স্বচ্ছ ধারণাও দিচ্ছে না তারা।
তিনি বলেন, ‘আমি চীনের এ ভূমিদখলের বিষয়ে ১০০ভাগ নিশ্চিত। এখনপর্যন্ত মালদ্বীপের কম করেও, ১৬ থেকে ১৭টি দ্বীপ চীনের দখলে চলে গিয়েছে। তবে, সাংবাদিকদের কাছে দখলকৃত দ্বীপগুলোর একটিরও নাম জানাতে পারেননি মালদ্বীপের নির্বাসিত সাবেক এ প্রেসিডেন্ট। রয়টার্স

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত