প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

খাওয়ার সময় নেই ব্রিটিশদের: জরিপ

মরিয়ম চম্পা: খাওয়ার সময় নেই অধিকাংশ ব্রিটিশ নাগরিকদের এমনটি দেখা গেছে দেশটির এক জরিপে। আধুনিক জীবনের বাস্তবতা দিনকে দিন বড়ই কঠিন হয়ে দেখা দিয়েছে ব্রিটিশদের জন্য। গবেষকদের দাবি, কাজের ব্যস্ততায় খাওয়ার সময়ও পাচ্ছে না তারা। সারা দিনের প্রধান ভোজ, রাতের খাবারে গড়পড়তা তারা সময় পায় মাত্র ২১ মিনিট। এ সময় পরিবারের অন্য সদস্যদেরও পাচ্ছে না খাবার টেবিলে।

চলতি মাসের শুরুর দিকে ২১৬৪ জন ব্রিটিশ নাগরিকের ওপর পাঁচ দিন ধরে গবেষণাটি করা হয়েছে। একটি চেইন ফুড শপের জন্য গবেষণাটি করেছে বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান ‘ওপিনিয়ন ম্যাটারস’।

গত শনিবার প্রকাশিত জরিপে অংশ নেওয়া লোকজন জানায়, ৫৭ শতাংশ-এর পরিবারের সদস্যদের ক্রমে বেড়ে যাওয়া ব্যস্ততা আর কাজের ভিন্ন সময়সূচিই নাকি খাবারের টেবিলের এমন চেহারা তৈরি করে দিয়েছে। প্রতি রাতে তাঁরা পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে খাওয়ার সুযোগ পান না। আর ৫৫ শতাংশ বলেছেন, তাঁদের খাওয়ার সময়টুকুতেও ভাগ বসায় স্মার্টফোন, কম্পিউটার বা টেলিভিশন। খাবার টেবিলই নেই ২০ শতাংশ পরিবারে।

অক্সফোর্ডভিত্তিক সোশ্যাল ইস্যু রিসার্চ সেন্টারের প্যাট্রিক আলেক্সান্ডার বলেন, এই জরিপের মাধ্যমে বোঝা যাচ্ছে, দিনে তিন বেলা বাসায় খাবারের আয়োজন বেশ দুর্লভ হয়ে পড়েছে দেশটিতে।

সাম্প্রতিক বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গেছে, ব্রিটিশ নাগরিকদের একটি বড় অংশ একাকিত্ববোধে ভুগছে। তাদের সহায়তা করতে গত বৃহস্পতিবারই একটি মন্ত্রণালয় গড়ার ঘোষণা দিয়ে মন্ত্রী নিয়োগ দিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে। বিবিসি

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত