প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সিরিয়ার আফরিনে তুর্কিবাহিনীর স্থল হামলা শুরু

কামরুল আহসান : তুরস্কের প্রধানমন্ত্রী বিনালী ইলদিরিম জানিয়েছেন, তুরস্কের স্থলবাহিনী সিরিয়ার কুর্দি নিয়ন্ত্রিত উত্তরাঞ্চল আফরিন এলাকায় ঢুকে পড়েছে। সেখানে তারা আফরিন এলাকা থেকে কুর্দি জঙ্গীদের তাড়িয়ে দিয়ে একটি ৩০ কিলোমিটার ব্যাপী ‘নিরাপদ এলাকা’ প্রতিষ্ঠা করার চেষ্টা করবে।

গত বৃহস্পতিবার খেকে তুরস্ক এ অঞ্চলে বোমা বর্ষণ করছে। শনিবার দুপুর থেকে শুরু হয় স্থল হামলা। কুর্দিবাহিনী, যারা ওয়াইপিজি বা কুর্দিস পিপল’স প্রোটেকশন ইউনিট নামে পরিচত, তাদের পক্ষ থেকেও পাল্টা হামলা চালানো হয়েছে। আফরিনের আকাশ এখন ধোঁয়ায় ঢাকা। ওয়াইপিজি জানিয়েছে, তারাই বরং অলিভ ফোর্সকে হটিয়ে দিয়েছে। অলিভ ফোর্স বিশেষ তুর্কিস্থলবাহিনীর নাম। ওয়াইপিজি মিলিশিয়া বাহিনী জানিয়েছে, তুরস্কের বিমানহামলায় আফরিনের বেশ কয়েকজন বেসামরিক লোকসহ মোট ৯ নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে প্রায় ১৫ জন।

গত শুক্রবারই তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান স্থল হামলা চালানোর ঘোষণা দিয়েছিলেন। তিনি বলেছিলেন, এ ছাড়া আমাদের সীমান্তে সন্ত্রাসী আক্রমণ থেকে ঠেকিয়ে রাখার আর কোনো পথ নেই। ওয়াপিজি, এসডিএফ এরা প্রত্যেকেই মূলত আইএসের মতোই নানা নামে আবির্ভূত হচ্ছে। এরা একইরকম জঙ্গী।

তবে তুরস্কের এমন অতর্কিত আক্রমণে সিরিয়া জানিয়েছে, এটা তাদের সার্বভৌমত্বের ওপরই আঘাত। অন্য দিকে রাশিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়েছে, তারা এখনো পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছে। রাশিয়ার নিরাপত্তা বিভাগের ডেপুটি চেয়ারম্যান সিনেটর ফ্রান্টস ক্লিনটিসিভিচ জানিয়েছেন, রাশিয়া তখনই এ ব্যাপারে হস্তক্ষেপ করবে যখন উক্ত অঞ্চলে অবস্থিত রাশিয়ার বাহিনীর ওপর কোনো আক্রমণ আসবে। এ আক্রমণ নিয়ে ন্যাটোর সঙ্গে তুরস্কের বাকবিত-া চলছে। বিশ্লেষকরা বলছেন, তুরস্ক একা কতোদূর পর্যন্ত এ ব্যয়বহুল হামলা চালাতে পারে তাই এখন দেখার বিষয়। বিবিসি

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত