প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

যৌন নির্যাতন ও মৃত্যুর কারণে কুয়েতে শ্রমিক পাঠাবে না ফিলিপাইন

রাশিদ রিয়াজ : কুয়েতে ফিলিপাইনের শ্রমিকদের ওপর নির্যাতনে মাত্রা বেড়ে যাওয়ায় আত্মহত্যার মত ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় দেশটিতে জনশক্তি রফতানি বন্ধ করে দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট রডরিগো দুতার্তে। একদিন আগেই তিনি বলেছিলেন, কুয়েতে মালিকদের নির্যাতনের কারণেই তার দেশের অনেক গৃহ শ্রমিক আত্মহত্যা করতে বাধ্য হচ্ছে। তবে ফিলিপাইনের এধরনের সিদ্ধান্তে কুয়েত বিস্ময় ও দুঃখ প্রকাশ করেছে। রয়টার্স

ফিলিপাইনের শ্রমমন্ত্রী সিলভেস্ট্রি বেলো বলেছেন, অন্তত ৭ ফিলিপাইন গৃহকর্মী কুয়েতে নির্যাতন সইতে না পেরে আত্মহত্যা করেছে। এসব ঘটনার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তার দেশ কুয়েতে গৃহশ্রমিক পাঠাবে না।

কুয়েতে আড়াই লাখ ফিলিপিনো কাজ করছে। এদের বেশিরভাগই গৃহকর্মী। আমিরাত, সৌদি আরব ও কাতারেও প্রচুর ফিলিপিনো কাজ করছেন। প্রেসিডেন্ট রডরিগো দুতার্তে বলেছেন, ফিলিপাইন চারজন নারীকে হারিয়েছে। এরা কুয়েতে কাজ করতে যেয়ে নির্যাতন সইতে না পেরে আত্মহত্যা করেছে। অধিকাংশ ঘটনাই ঘটেছে যৌন নির্যাতনের ফলে। কুয়েতকে বলছি এধরনের নির্যাতন আর সহ্য করা যায় না এবং এ সম্পর্কে দেশটির সরকারের উচিত সত্য কথা বলা।

তবে কুয়েতের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ বলছে, ফিলিপাইনের অন্তত ১ লাখ ৭০ হাজার গৃহশ্রমিক দেশটিতে কাজ করছে যাদের সুরক্ষা নিশ্চিত করা হয়েছে। এ ব্যাপারে ফিলিপাইনের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে কুয়েত। ২৩ মিলিয়ন ফিলিপিনো কাজ করছে বিদেশে যারা প্রতিমাসে তাদের আয় থেকে ২ বিলিয়ন ডলার দেশে পাঠায়। গত এপ্রিলে প্রেসিডেন্ট দুতার্তে উপসাগরীয় দেশগুলো ভ্রমণের সময় তার দেশের গৃহশ্রমিকদের ওপর নির্যাতনের বিষয়টি তুললেও পরিস্থিতির খুব একটা হেরফের হয়নি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত