প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘পদ্মাবৎ’ দেখানো হলে সিনেমা হল জ্বালিয়ে দেয়ার হুমকি রাজপুত সম্প্রদায়ের

আবু সাইদ: ভারতের সুপ্রিম কোর্ট সারা দেশে ‘পদ্মাবৎ’ মুক্তির নির্দেশ দিলেও, ছত্তিসগঢ়ের রাজপুত সম্প্রদায়ের একাংশ এখনও সঞ্জয় লীলা বনশালীর ছবিটির বিরোধিতায় অনড়। ছত্তিসগঢ়ের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রামসেবক পাইকরার কাছে স্মারকলিপি জমা দিয়ে রাজ্যে ছবিটি নিষিদ্ধ করার দাবি জানিয়েছে রাজপুতদের একটি সংগঠন। সেইসঙ্গে ছত্তিসগঢ়ের রাজপুত সম্প্রদায়ের আরও এক সদস্য ট্যুইটারে হুমকি দিয়েছেন, ‘এটাই আমাদের শেষ হুঁশিয়ারি। আমাদের কাছে রানি পদ্মাবতী সর্বোচ্চ সম্মাননীয় ব্যক্তি। কাউকে তাঁর মর্যাদা নিয়ে খেলা করতে দেব না আমরা। যে সিনেমা হলগুলিতে ছবিটি দেখানো হবে, সেই হলগুলি পুড়িয়ে দেওয়া হবে।’

মধ্যপ্রদেশের উজ্জয়িনীতে রাজপুত করণী সেনার প্রধান লোকেন্দ্র সিংহ কালভি বলেছেন, ‘সব সামাজিক সংগঠনকে ছবিটির মুক্তি আটকে দেওয়ার আবেদন জানাচ্ছি। সিনেমা হলগুলিতে ‘পদ্মাবৎ’ চলতে দেওয়া উচিত নয়। যে সিনেমা হলগুলিতে ছবিটি দেখানো হবে, সেগুলির বাইরে কার্ফু-পরিস্থিতি তৈরি করার আবেদন জানাচ্ছি সবাইকে।’

লোকেন্দ্র আরও দাবি করেছেন, ‘পদ্মাবৎ’ মুক্তি পেলে দেশে সামাজিক সমস্যা তৈরি হবে। তাই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ছবিটিকে নিষিদ্ধ করা উচিত।

হরিয়ানার বিজেপি নেতা সুরজ পাল আমু একধাপ এগিয়ে বলেছেন, ‘ সুপ্রিম কোর্ট লক্ষ কোটি হিন্দুর ভাবাবেগে আঘাত করেছে। এই ছবিটি মুক্তি পেলে দেশ টুকরো টুকরো হয়ে যাবে। আমাকে ফাঁসি দেওয়া হলেও লড়াই চলবে।’

বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্ট জানিয়ে দিয়েছে, রাজস্থান, গুজরাত, মধ্যপ্রদেশ, হরিয়ানার মতো যে রাজ্যগুলিতে ‘পদ্মাবৎ’ নিষিদ্ধ করা হয়েছিল, সেই রাজ্যগুলি সহ সারা দেশেই ছবিটি মুক্তি পাবে। তবে রাজপুতদের সংগঠন সুপ্রিম কোর্টের এই নির্দেশের বিরোধিতা করছে। সূত্র: জি নিউজ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত