প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

৪ এর টিকে থাকাটাই বড় অর্জন

আবু সাঈদ খান : দশম সংসদ চার বছর পূরণ করে পাঁচ বছরে পা দিয়েছে। ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি এই সংসদ নির্বাচনটি অনুষ্ঠিত হয়েছিল। বর্তমান সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকার প্রধান হিসাবে শপথ নিয়েছিলেন ১২ জানুয়ারি। দেশের সবারই জানা আছে, দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনটি বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক ছিল। যেখানে অর্ধেক সংসদ সদস্যই ভোট ছাড়া সংসদে এসেছে। সেই কারণে এই সংসদের স্থায়িত্ব নিয়ে সাধারণ মানুষের মধ্যে একটা সংশয় তৈরি হয়েছিল। মানুষ ভেবেছিল, এই সংসদ হয়তো বেশি দিন টিকবে না। আবার আওয়ামী লীগ থেকেও একটা কথা বলা হয়েছিল, সংবিধান রক্ষার জন্যই নির্বাচনটি হচ্ছে। যার মাধ্যমে মধ্যবর্তি নির্বাচনের একটা আভাস দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু আমরা দেখতে পাচ্ছি, ভোটারবিহীন সেই সরকার চার বছর পূরণ করে শেষের বছরে পা দিয়েছে। সেই সাথে সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নানাভাবে আন্তর্জাতিকভাবে প্রশংসিত হয়েছেন।

তাই বলতে হচ্ছে, ভোট ছাড়া সরকার চার বছর টিকে আছে, এটাই বর্তমান সরকারের সবচেয়ে বড় অর্জন।নবম এবং দশম সংসদের দুই মেয়াদ মিলিয়ে সরকার টানা নয় বছর ক্ষমতায় আছে। এই নয় বছরের মধ্যে সরকার চলমান উন্নয়ন প্রক্রিয়ার সাথে অনেক বড় বড় প্রকল্পের কাজ শুরু করেছে। বিশেষ করে, বড় একটা চ্যালেঞ্জ নিয়ে সরকার পদ্মা সেতু নির্মাণ করছে। যদিও পদ্মা সেতু নির্মাণের ব্যয় অনেক বেড়ে গেছে। তারপরও দেশিয় অর্থায়নে পদ্মা সেতু করা আন্তর্জাতিকভাবে এটা সরকারের জন্য সফলতা। পদ্মা সেতু আমাদের জাতীয় অর্থনীতিতে বড় ধরনের একটা অবদান রাখবে, জাতীয়ভাবে একটা আশাবাদ তৈরি হয়েছে। সরকার যেভাবে কাজ করে যাচ্ছে বা যে ধরনের প্রকল্প হাতে নিয়েছে তাতে অর্থনৈতিকভাবে সরকার বিষয়ে দেশে এবং বিদেশে বাংলাদেশ নিয়ে উন্নয়নের একটা আশাবাদ তৈরি হয়েছে।

তবে এই অর্থনীতিতে ধনী আরও ধনী হচ্ছে আর গরিব আরও বেশি গরিব হচ্ছে, শহর গ্রামে বৈষম্য বাড়ছে। আমাদের সংবিধানের একটা চেতনা হচ্ছে, পরিকল্পিত অর্থনীতির মাধ্যমে ধনী-গরিবে বৈষম্য কমিয়ে আনা হবে। কিন্তু বর্তমান অর্থনীতিতে তা হচ্ছে না। এই সরকার দুর্নীতি দমন করতে পারেনি। দুর্নীতির নাটাইয়ের সুতা সরকারের হাত থেকে ছুটে আকাশ ছোঁয়েছে। একদম মাত্রা ছাড়িয়ে নিয়ন্ত্রণহীন হয়ে পড়েছে। ব্যাংক খাতে পারিবারিককরণসহ অরাজকতার সাথে লুট-পাট হয়েছে। একেবারে নৈরাজ্য সৃষ্টি হয়েছে ব্যাংক খাতে। যার ফলে ব্যাংক সম্পর্কে মানুষের আস্থাহীনতা তৈরি হয়েছে। সরকার দ্রব্য মূল্য নিয়ন্ত্রণ করতে পারেনি। একটা সিন্ডিকেট বাজার নিয়ন্ত্রণ করছে। এক কথায় বাজারে সুশাসন নেই। বাজারে ভারসাম্য আনার ক্ষেত্রে সরকার সফলতার পরিচয় দিতে পারেনি। এরকম নানাবিধ সফলতা আর ব্যর্থতার মধ্যে দিয়েই সরকার চার বছর অতিক্রম করেছে।
পরিচিতি : সিনিয়র সংবাদিক
মতামত গ্রহণ : লিয়ন মীর
সম্পাদনা : মোহাম্মদ আবদুল অদুদ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ