প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

৩ বছরে পথশিশুদের সঞ্চয় অর্ধকোটি টাকা

সজিব খান: সমাজে সবচেয়ে অবহেলিত, সুবিধাবঞ্চিত পথশিশুদের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে একটাকা-দু’টাকা করে গত তিন বছরে জমা হয়েছে অর্ধকোটি টাকা। বাংলাদেশ ব্যাংকের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, ২০১৪ সাল থেকে চলতি বছরের ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চার হাজার ৬৭১টি পথশিশুর ব্যাংক হিসাব খোলা হয়েছে এবং তাতে জমা হয়েছে ৪৬ লাখ ৮৯ হাজার টাকারও বেশি অর্থ।

বাংলাদেশ ব্যাংকের সর্বশেষ প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, চলতি বছরের জুলাই থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত তিন মাসে পথশিশুরা বিভিন্ন ব্যাংকে সঞ্চয় করেছে ২০ লাখ ৪১ হাজার টাকা । এর আগে, এ বছরের ৩০ জুন পর্যন্ত তাদের জমানো টাকার পরিমাণ ছিল ২৬ লাখ ৪৮ হাজার। সেপ্টেম্বরে এসে তাদের জমানোর টাকার পরিমাণ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪৬ লাখ ৮৯ হাজার টাকারও বেশি।

এ প্রসঙ্গে ড. আতিউর রহমান বলেন, ‘সমাজ থেকে বিচ্ছিন্ন আমাদের পথশিশুরাও সঞ্চয় করছে। এটা খুবই ভালো লাগার একটি তথ্য। এখন ওরা সবাই মিলে অর্ধকোটি টাকা সঞ্চয় করেছে, ভবিষ্যতে ওরা এক-একজন অর্ধকোটি টাকার মালিক হবে। ওরা তো ফেলনা নয়, ওরাও আমাদের মতোই মানুষ। অথচ ওদেরকে সবসময় ব্যাংকিং সেবার বাইরে রাখা হতো। একসময় এই পথশিশুরা ব্যাংকে ঢুকতেই পারত না।’

জানা গেছে, বর্তমানে দেশের ১৫টি বেসরকারি সংস্থা (এনজিও) এই পথশিশুদের ব্যাংক হিসাব দেখভাল করছে। অধিকাংশ পথশিশুর কোনও অভিভাবক না থাকায় এনজিও প্রতিনিধিরা তাদের অভিভাবক হয়ে ব্যাংক অ্যাকাউন্ট পরিচালনা করছেন।

বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, গত ৯ মাসে নতুন করে ৯৪৬ পথশিশু ব্যাংকের সেবা নিয়েছে। ২০১৬ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এমন শিশুর সংখ্যা ছিল ৩ হাজার ৭২৫। আর চলতি বছরের ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ৪ হাজার ৬৭১টি পথশিশু ব্যাংকে লেনদেন করেছে।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের তথ্য মতে, পথশিশুদের সবচেয়ে বেশি হিসাব খুলেছে রাষ্ট্রায়ত্ত রূপালী ব্যাংক। এই ব্যাংকে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত পথশিশুদের ব্যাংক হিসাবের সংখ্যা ১ হাজার ২১টি। ৭৬৫ জন পথশিশুর হিসাব খুলে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে বেসরকারি ব্যাংক সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক। এরপর ৫৪৪ জন পথশিশুর হিসাব খুলে তৃতীয় স্থানে থাকা বেসরকারি পূবালী ব্যাংক জমা আছে ৩ লাখ টাকা।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালের ৯ মার্চ ১০ টাকার বিনিময়ে পথশিশুদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খোলার সুযোগ করে দিতে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোকে নির্দেশ দেন বাংলাদেশ ব্যাংকের তৎকালীন গভর্নর ড. আতিউর রহমান। তার ওই নির্দেশনার পর তিন বছরেই পথশিশুদের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে ৪৬ লাখ টাকারও বেশি পরিমাণ অর্থ জমা হলো। সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত