প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ব্যাংকগুলোকেও বিনিয়োগবান্ধব হওয়া দরকার

ড. আবুল বারাকাত : শুধু যে দুর্নীতির কারণে আমাদের বেসরকারি বিনিয়োগ বাড়ছে না, এটা কিন্তু সঠিক নয়। বেসরকারি বিনিয়োগ নিয়ে দেশে অনেক গবেষণা হয়েছে। কেন তারা বিনিয়োগ করছে না? কিভাবে বিনিয়োগ বাড়ানো যায়? সবই যাচাঁই বাছাই করা হয়েছে। শুধু একটি কারণ নয়, অনেকগুলো কারণ খোঁজে পাওয়া গেছে। কিন্তু সাধারণভাবে যে অভিযোগগুলো আছে, তার অনেক অভিযোগই সঠিক নয়। বিনিয়োগের সাথে রিটার্ণের সম্পর্ক আছে। বিনিয়োগের সাথে নিরাপত্তার সম্পর্ক আছে, টাইমের সম্পর্ক আছে। এমন অনেক কারণ আছে।

বিনিয়োগ করতে গেলে যদি বিভিন্ন ধাপে ঘুষ দিতে হয়, তাহলে ব্যবসা করার ব্যয় বাড়ে। ব্যয় বাড়লে ব্যবসায়িদের প্রফিট কমে। তবে এটি একমাত্র কারণ নয়। তাই সরকারের উচিত যারা বিনিয়োগ করতে চায়, তাদের বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা করে দেওয়া, যেখানে বিনিয়োগকারীরা বাধার সম্মুখীণ হবে, সেখানে যাতে বাঁধা সৃষ্টি না হয়, সেটা দেখা। তাদের বিনিয়োগের নিরাপত্তা দেওয়া। অনেক বিনিয়োগকারী ব্যাংক থেকে লোন নেন। তাই ব্যাংকগুলোকেও বিনিয়োগবান্ধব হওয়া দরকার। তবে এটা খেয়াল রাখতে হবে, তারা লোন নিয়ে ফিরত না দিলে ব্যাংকও সমস্যায় পড়বে। অনেক সময় বিনিয়োগকারীরা রিসিডিউল করে। যেটা বিনা কারণে করে থাকে। আবার অনেকে আছে, অন্যরা রিসিডিউল করছে আমি করি, এমনটি ভাবে। এমন অনেক কারণ আছে, বিনিয়োগ করা না করার পেছনে। এটির সঠিক সমাধানও দেওয়া যাবে না।

পরিচিতি : অর্থনীতিবিদ
মতামত গ্রহণ : গাজী খায়রুল আলম
সম্পাদনা : মোহাম্মদ আবদুল অদুদ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত