প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ধুনটের স্কুলছাত্রী নির্যাতন মামলার প্রধান আসামি গ্রেফতার


আরএইচ রফিক,বগুড়া : অবশেষে বগুড়ার ধুনটে বখাটে যুবকের প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় ঘটনায় বাড়ীঘরে হামলা ভাংচুর ও স্কুল ছাত্রীকে অপহরণের পর ঘরে আটকে রেখে ধর্ষনের চেষ্টায় নির্যাতনের ঘটনার মূল আসামি আকুল হোসেন(২০) র‌্যাব এর হাতে আটক হয়েছে । র‌্যাব-১২, সিপিএসসি, বগুড়া ক্যাম্পের একটি বিশেষ দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে ২৪ ডিসেম্বর (রবিবার ) গাজীপুর জেলার শ্রীপুর উপজেলার মাওনা বাঁশবাড়ী এলাকা হতে তাকে গ্রেপ্তার করে।
আসামি আকুল হোসেন বগুড়ার ধুনট উপজেলার ভান্ডারবাড়ী গ্রামের বাসিন্দা মোঃ হাবিবুর রহমান এর ছেলে।
সোমবার সকালে র‌্যাব -১২ বগুড়া বিশেষ কোম্পানী সদরে আয়োজিত এক ব্রিফিং অনুষ্ঠানে র‌্যাবের পক্ষে জানানো হয় । ধুনট থানার মামলা নং-৫ তারিখঃ ১২/১২/২০১৭ ইং, ধারাঃ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ (সংশোধনী/০৩) এর ৭/১০ তৎসহ ৪৪৮/৩২৩/৩০৭/৩৭৯/৪২৭/৫০৬(২) পেনাল কোড এর ১নং এর ভিত্তিতে আসামীকে গ্রেপ্তার করলো র‌্যাব ।
মিম তালুকদারের মা মুক্তা বেগম জানান, তার মেয়ে ৫ম শ্রেণি পাশ করার পর নিজ গ্রামের ভান্ডারবাড়ী ছালেহা জহুরা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তি করানো হয়। ওই সময় থেকে বখাটে আকুল রাজ তার মেয়েকে পথে ঘটে বিভিন্ন সময় প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যাক্ত করতো।
বিষয়টি গ্রাম্য মাতব্বরদের কাছে নালিশ করেও কোন প্রতিকার না পেয়ে মেয়ের লেখাপাড়ার জন্য তাকে সিরাজগঞ্জ জেলার কাজিপুর উপজেলার রানী দিনু মনি উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তি করানো হয়। কিন্তু সেখানে নিকট আত্বীয়ের বাড়ী থেকে লেখাপড়া করা কালিন সময়েও বখাটে আকুল রাজ একাধিকবার কাজিপুরে গিয়ে তার মেয়েকে উত্ত্যাক্ত করছিল।
এদিকে মামলাসূত্রে জানা গেছে , ধুনট উপজেলার ভান্ডারবাড়ী গ্রামের মতিয়ার রহমানের মেয়ে কাজিপুর উপজেলার রানী দিনু মনি উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্রী মিম তালুদারকে (১৪) ভান্ডারবাড়ী গ্রামের হবিবর রহমানের ছেলে আকুল রাজ (১৯) দীর্ঘদিন যাবত প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। কিন্তু এতে ওই ছাত্রী রাজি না হওয়ায় গত সোমবার বিকালে আকুল রাজ ক্ষিপ্ত হয়ে মতিয়ার রহমানের বাড়ীতে হামলা চালিয়ে ঘর দরজা ভাংচুর করে স্কুল ছাত্রী মিম তালুকদারকে অস্ত্রের মুখে অপহরণ করে নিজ বাড়ীতে নিয়ে যায়। সেখানে ওই ছাত্রীকে ঘরের মধ্যে আটকে রেখে মারপিট ও ধর্ষনের চেষ্টা চালায় । এক পর্যায়ে ওই ছাত্রীর চিৎকারে আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে গিয়ে তাকে উদ্ধার করে সন্ধ্যায় ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। ওই ঘটনায় পরদিন মঙ্গলবার দুপুরে ওই ছাত্রীর বাবা মতিয়ার রহমান তালুকদার বাদী হয়ে তিন জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেন । এ ঘটনায় ধুনট থানা পুলিশ তাকে গ্রেপ্তারে ব্যাথ হলেও র‌্যাব তাকে গ্রেফতার করে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত