প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ভারতের ‘স্পিরিচুয়াল বিশ্ববিদ্যালয়’ থেকে ২০০ নারী উদ্ধার

প্রিয়াংকা পান্ডে : ভারতের প্রাণকেন্দ্র দিল্লির খুব কাছের একটি আধ্যাতিক বিশ্ববিদ্যালয় ‘রোহিনি আশ্রম’এ অনুসন্ধান চালিয়ে অন্তত ২০০ নারীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। দিল্লির উত্তর-পশ্চিমের শহর রোহিনিতে অবস্থিত ওই বিদ্যানিকেতনে উদ্ধারকার্যটি পরিচালিত হয়।
এ বিষয়ে দিল্লি পুলিশের মহিলা কমিশনার স্বাতী মালিয়াল জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪ তলা দালানের ভিতরে গিয়ে অবাক হয়েছেন তিনি। তিনি বলেন, ‘দালানটি একটি দূর্গের মতো । ভিতরে ৪কদম গিয়েই একটি ধাতব দরজা। এরপর আবারো ৫ কদম গিয়ে আরো একটি দরজা। পুরোটাই গোপন কেবিনের মতো।’
উদ্ধারকৃত নারীদের সম্পর্কে মালিয়ান বলেন, ‘অনেকগুলো দরজা পেরিয়ে তাদের (নারী) সন্ধান পাওয়া গেছে। সকলেই মাদকের নেশায় বুদ ছিলো।’
পুলিশ জানায়, বিশ্ববিদ্যালয়টি থেকে প্রচুর পরিমানে মাদক ও সিরিঞ্জ উদ্ধার করা হয়েছে। সেখানকার বেশ কিছু দ্রব্য ২৫ বছরের পুরাতন বলেও দাবি করে পুলিশ।
ওই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পলাতক এক নারীর জবানবন্দি নিয়ে একটি এনজিও থেকে দিল্লি কোর্টে আপিল করা হলে মঙ্গলবার পুলিশি অনুসন্ধানের অনুমতি দেওয়া হয়। পলাতক নারীকে জোরপূর্বক মাদক গ্রহন ও শ্লীলতাহানি করা হয়েছিলো বলে জানা যায়।
এর আগে রাম রহিম সিং এবং সম্প্রতি স্বামী সচ্চিদানন্দের পর এই বিশ্ববিদ্যালয়ে অবস্থা দেখে হতচকিত পুরো দেশ। প্রতিষ্ঠানটির গুরু বিরেন্দ্র দেব দিক্ষিতকে আদালতে আনার প্রক্রিয়া চলছে। গার্ডিয়ান

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত