প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

অবিলম্বে ডাকসুসহ সকল ছাত্র সংসদ নির্বাচন দিতে হবে: ইশা ছাত্র আন্দোলন

রফিক আহমেদ : ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক এটিএম হেমায়েত উদ্দিন বলেছেন, দেশের সর্বোচ্চ বিদ্যাপীঠ বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজগুলো থেকে আগামী দিনের জাতির নেতৃত্ব সৃষ্টি হয়। তাই নেতৃত্ব গঠনের জন্য ডাকসুসহ সকল বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজগুলোতে ছাত্র সংসদ নির্বাচন দিতে হবে। কিন্তু প্রায় তিন দশক পর্যন্ত ঠুনকো কারণে অদৃশ্য শক্তির প্রভাবে ছাত্র সংসদ নির্বাচন বন্ধ রয়েছে।

বুধবার বিকাল ৩টায় জাতীয় প্রেস ক্লাব ভিআইপি লাউঞ্জে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন কর্তৃক আয়োজিত ‘ছাত্র সমাজের অধিকার আদায়ে ছাত্র সংসদ নির্বাচনের প্রয়োজনীয়তা’ শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে তিনি কথা বলেন।

সভাপতির বক্তব্যে জি.এম. রুহুল আমীন বলেন, লেজুড়ভিত্তিক ছাত্র সংগঠনের অস্থিরতা মোকাবিলা এবং শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ বজায়, শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা, মেধাবী নেতৃত্ব তৈরি এবং ছাত্র সমাজের অধিকার আদায়ে ছাত্র সংসদ নির্বাচনের কোনো বিকল্প নেই।

ছাত্র নেতৃবৃন্দ বলেন, আমরা মনে করি ক্ষমতাসীন দলগুলোর ছাত্র সংগঠনের হল দখলসহ নানা প্রকার অপকর্মের প্রশ্রয় ও বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের একচ্ছত্র অনিয়মতান্ত্রিক স্বার্থ হাসিলের জন্য ছাত্র সংসদ নির্বাচন দেয়া হচ্ছে না। তাই ছাত্রদের অধিকার রক্ষা ও জাতীয় নেতৃত্ব তৈরির জন্য অবিলম্বে ডাকসুসহ সকল বিশ্ববিদ্যালয়ে নির্বাচন দিতে হবে।

ছাত্র সমাজের অধিকার আদায়ে ছাত্র সংসদ নির্বাচনের প্রয়োজনীয়তা শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠক থেকে পাঁচদফা দাবি ঘোষণা করা হয়-

এক. অতিদ্রুত দেশের সকল পাবলিক বিশ^বিদ্যালয় ও সরকারি কলেজসমূহে ছাত্র সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করতে হবে।
দুই. অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনের জন্য ইউজিসির ব্যবস্থাপনায় একটি স্বতন্ত্র “ছাত্র সংসদ নির্বাচন কমিশন” গঠন করতে হবে।
তিন. সকল ক্যাম্পাসে সব ছাত্র সংগঠনের শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান নিশ্চিত করতে হবে।
চার. ক্যাম্পাসসমূহে ধর্মীয় ছাত্র রাজনীতির ওপর অসাংবিধানিক প্রশাসনিক বিধি-নিষেধ প্রত্যাহার করতে হবে।
পাঁচ. হলগুলোতে সরকার দলীয় ছাত্র সংগঠনের একচ্ছত্র আধিপত্য নিরসন করে নিয়মতান্ত্রিক পদ্ধতিতে সাধারণ শিক্ষার্থীদের জন্য সিট বরাদ্ধ নিশ্চিত করতে হবে।

কেন্দ্রীয় সভাপতি জি.এম. রুহুল আমীনের সভাপতিত্বে গোলটেবিল বৈঠকে অন্যান্যদের মধ্যে আরও বক্তব্য রাখেন, মুহাম্মদ বরকত উল্লাহ লতিফ, শাহ ইফতেখার তারিক, এস.এইচ খান আসাদ, মুহাম্মাদ আবদুর রহমান, মুহা. কামরুল ইসলাম সুরুজ, হাফেজ আল আমিন ও মুহা. রুবেল আহমেদ প্রমুখ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত