প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সিরিয়ার বিদ্রোহী নেতাদের গণহারে পদত্যাগ : বুধবার রিয়াদ সম্মেলন

সাইদুর রহমান : সিরিয়ায় লড়াইরত বিদ্রোহী দলগুলোর নেতাদের অধিকাংশই পদত্যাগ করেছেন। সিরিয়ার বিদ্রোহী দলের শান্তি আলোচনা কমিটির প্রধান রিয়াদ হাজাব ও উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি সুহায়র আতাসীও পদত্যাগ করেছেন। তবে কী কারণে তারা পদত্যাগ করছেন এব্যাপারে সুনিদির্ষ্ট কোনো কারণ ঘোষণা করা হয়নি। খবর আল-আরাবিয়্যাহ , খালিজ অনলাইন

তবে বিদ্রোহী দলের প্রধান সমন্বয়ক সুহায়র আতাসী বলেন, বাশার আসাদকে ক্ষমতায় রেখে রাজনৈতিক সমাধানের জন্য পশ্চিমা দেশগুলো চাপ দিচ্ছে। মূলত এ চাপের কারণে বাধ্য হয়ে দলের নেতার পদত্যাগ করেছেন।
আতাসী আরো বলেন, বিদ্রোহী দলের নেতারা পদত্যাগ করেছেন মূলত রাজনৈতিক সমাধানের জন্য আন্তর্জাতিক পর্যায়ে কোন সম্মেলন করতে না পারা। এখন রিয়াদ সম্মেলনের রাশিয়ার প্রস্তাবনা নিয়ে আলোচনা করা হবে। পদত্যাগের ক্ষেত্রে সৌদি আরবের কোন ভূমিকা নেই। না রিয়াদ সম্মেলনের সাথে সর্ম্পক রয়েছে।

তবে বিশ্লেষকরা বলছেন, সৌদি আরবের চাপেই এই পদত্যাগ করানো হয়েছে। পদত্যাগের পরেই রিয়াদে শান্তি আলোচনার জন্য নতুন কমিটি গঠন করা হবে।

এদিকে বিদ্রোহী নেতাদের আকষ্মিক পদত্যাগ এবং বুধবারে রিয়াদ সম্মেলনের ঘোষণার পরপরেই রাশিয়ার শোচিতে আকষ্মিক সফরে গিয়েছেন সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ। সেখানে রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনের সাথে বাশার আসাদ সিরিয়ায় রাজনীতিক পরির্বতনের ইস্যু নিয়ে আলোচনা করবেন।
রিয়াদ সম্মেলনের দিনই রাশিয়ার শোচিতে ইরান, তুরস্ক এবং রাশিয়া এবং সিরিয়ার প্রতিনিধিদের বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।

তবে এর আগে গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছিল, সৌদি আরবের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আদেল জুবায়ের সিরিয়ার বিদ্রোহী দলের প্রধান রিয়াদ হাজাবের সাথে সৌদি আরবের ভিন্ন কর্মপন্থা নিয়ে আলোচনা করেন।
পাশাপাশি হুমকিও দেন যে, সৌদি আরব নতুন কর্মপন্থার আওতায় বাশার আসাদকে ক্ষমতায় রেখে রাজিৈনতিক

কার্যক্রম শুরু করবে। এতে যদি বিদ্রোহী দল সম্মত হয় তাহলে তাদের নিয়ে কাজ করা হবে অন্যথায় তাদের রেখেই সিরিয়ায় রাজনৈতিক সমাধানের পথে অগ্রসর হবে।

অন্যদিকে বিদ্রোহী নেতাদের পদত্যাগকে স্বাগত জানিয়েছে। রাশিয়া বলছে, পদত্যাগকৃত নেতারা কট্টরপন্থি ছিল। এবং এই পদত্যাগের কারণে শান্তি আলোচনা অগ্রগতি আরো বাড়বে। পদত্যাগের ফলে নতুনভাবে বিদ্রোহী নেতাদের গঠন করা হবে। এবং নতুন কমিটি জেনেভাতেই অনুষ্ঠিত হবে।

ধারণা করা হচ্ছে, সিরিয়ার রাজনৈতিক পরিস্থিতি পরিবর্তনের দিকে যাচ্ছে। সৌদিসহ আরব দেশগুলো পূর্বের সিদ্ধান্ত বাশার আসাদকে হটানোর সিদ্ধান্ত থেকে ফিরে এসেছে। এখন রাশিয়ার মধ্যস্থতায় বাশার সরকারের সাথে সমঝোতা করে রাজনৈতিক সমাধান করতে চাচ্ছে আরব বিশ্ব। আর এই মনোভাবকেই সমর্থন করেছে পশ্চিমা দেশগুলো। সূত্র : খালিজ অনলাইন, আল-আরাবিয়্যাহ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ