প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

গাজীপুরে গৃহবধুসহ দু’জনের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

মুহাম্মদ মিজানুর রহমান মিলন, গাজীপুর : গাজীপুরে পৃথক ঘটনায় নিহত এক পরিবহন শ্রমিক ও এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ রবিবার উদ্ধার করেছে পুলিশ।

কালিয়াকৈর থানার এসআই আব্দুল হাকিম মিয়া ও স্থানীয়রা জানায়, গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার সূত্রাপুর ইউনিয়নের নয়ানগর দক্ষিনপাড়া এলাকার ফখরুদ্দিনের ছেলে সোহেল হোসেনের (২৬) কাছে পাওনা টাকা আদায়ের জন্য এক ব্যক্তি রবিবার সকালে সোহেলের বাড়িতে যায়।

দীর্ঘক্ষণ ডাকাডাকি করেও সোহেলের কোন সাড়া শব্দ পায়নি। একপর্যায়ে প্রতিবেশীরা দরজা বন্ধ ঘরে উঁকি দিয়ে খাটের উপরে ঘরের আড়ার সঙ্গে সোহেলের ঝুলন্ত লাশ দেখতে পায়। খবর পেয়ে রবিবার দুপুরে নিহতের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

জয়দেবপুর থানা পুলিশের এসআই আব্দুর রহমান জানান, এলাকাবাসির সংবাদের ভিত্তিতে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের বোর্ডবাজার এলাকার এক বাড়ি থেকে গলায় ওড়না পেঁচানো এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়। তার নাম আইরিন নাহার মুন্নী। সে বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার উলানিয়া গ্রামের আলতাফ হোসেন রাড়ীর মেয়ে।

গত ৩মার্চ বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জের পাতার হাট এলাকার রাজ্জাক রাড়ীর ছেলে মাহাতি মোঃ আজাদের সঙ্গে মুন্নীর বিয়ে হয়। বিয়ের পর এ দম্পতি গাজীপুরের বোর্ডবাজার এলাকার ভাড়া বাসায় থেকে গার্মেন্ট কাপড়ের ব্যবসা করতো।

নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরন করা হয়। ঘটনার পর থেকে নিহতের স্বামী পলাতক রয়েছে।

স্বজনদের অভিযোগ, বিয়ের পর থেকেই মুন্নীকে প্রায়শঃ নানাভাবে নির্যাতন করে আসছিল তার স্বামী। স্বামীর নির্যাতনের কারনেই মুন্নীর মৃত্যু হয়েছে।

তবে হত্যার এ ঘটনাটি আত্মহত্যা বলে ধামাচাপা দিতে চেষ্টা চালাচ্ছে একটি মহল।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ