প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মূল্যবোধ নেই বলে অপহরণ, খুন, ধর্ষণের ঘটনা ঘটে

মু. নজরুল ইসলাম তামিজী : একটার পর একটা অপহরণের ঘটনা ঘটেই যাচ্ছে। এটার মূল কারণ হচ্ছে, আইনের শাসন-প্রয়োগ না থাকা। যত দিন আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হবে না, তত দিন এই ঘটনা ঘটতেই থাকবে। আমাদের দেশে আইন প্রশ্নবিদ্ধ। আমাদের দেশে এইসব অপহরণ, লাঞ্চিত ও ধর্ষিত হওয়া অহরহ ঘটছে। আরও একটি বিষয় হলো, একটি ঘটনা যখন ঘটে, তখন আমরা সন্দেহমূলক কয়েক জনের নাম বলি। এই ক্ষেত্রে দেখা যাচ্ছে, কখনো কখনো আমরা যাকে সন্দেহ করি সেই অপরাধী হয়।

আবার কখনো আমরা এমন কাউকে সন্দেহ করি যে ঐ ঘটনার কিছ্ইু জানে না। এসব ঘটনাগুলো হয় যখন দু’জনের মধ্যে ঝামেলা হয়, তখন তৃতীয় পক্ষ এসে এমন ঘটনা ঘটায়। তাদের দোষারোপ করার জন্য। এখন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রীকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে থেকে অপহরণের ঘটনাটাও এমন হতে পারে। যদিও ভিকটিমের বাবা ভিকটিমের স্বামীকে সন্দেহ করছে। যেহেতু স্বামীর সাথে তার ডিভোর্স হয়ে গেছে। আর একটা বিষয় হচ্ছে, আমাদের ভিতরের কোনো মূল্যবোধ কাজ করে না।

আর মূল্যবোধ নেই বলে অপহরণ, খুন ও ধর্ষণের মতো ঘটনা ঘটে। তাই আমাদের ভেতরের বোধগুলোকে জাগ্রত করতে হবে। সবচেয়ে বেশি যেটা দরকার, সেটা হচ্ছেÑ কনসাসনেস, পাবলিক এওয়্যারনেস। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রশাসন, তাদের পক্ষেও সম্ভব না এতোগুলো ছাত্রছাত্রীর একসাথে নিরাপত্তা দেওয়া। তাদের সে রকম সুযোগও নেই। আর আমাদের দেশের আইনশৃক্সক্ষলা বাহিনীর পক্ষেও এটা সম্ভব নয়। পৃথিবীর উন্নত দেশগুলোর দিকে যদি আমরা তাকাই একই অবস্থা। আমাদের পুলিশ বাহিনী দেখেন, রাস্তা রাস্তায় অনেক পুলিশ দেখা যায়। যেটা অন্য কোনো দেশে নেই। সে অুনপাতে সিকিউরিটি হচ্ছে না। কারণ আমাদের ভেতর মূল্যবোধ কাজ করে না।

 

পরিচিতি : চেয়ারম্যান, জাতীয় মানবাধিকার পরিষদ
মতামত গ্রহণ : গাজী খায়রুল আলম
সম্পাদনা : মোহাম্মদ আবদুল অদুদ ও খন্দকার আলমগীর হোসাইন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ