প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আইন জানলে বাংলাদেশ সুশাসনের অধীনে চলে আসবে

ড. মো. শাহ জালাল : আইনটা সার্বজনীন। শুধু আইনজীবিরাই আইন জানবে এমনটি নয়। দেশের সবাইকে মৌলিক আইনগুলো জানতে হবে। যেখানে একটি মানুষ তার ব্যক্তিত্ব বিকাশের সুযোগ পায়, নবম দশম শ্রেণীতে উঠলেই ছেলে মেয়েরা পরিবার থেকে বেরিয়ে আসতে চায়, তারুন্যদীপ্ত এ সময়ে তারা স্বাধীন হতে চায়, স্বয়ংক্রিয় চেতনা তার মধ্যে তৈরি হয়, এ বয়সে সে যদি আইন জানার চেষ্টা করে, তাহলে সে কদাচিৎ আইন লংঘন করবে। আইন শিখলে সে কোনো আইনজীবির কাছে যাবে না, আইনজীবিদেরকে শ্রদ্ধা জানাবে না, আইনের ফাঁক ফোকর জেনে যাবে, আমাদের এধরনের হীনমন্যতা থেকে আগামী প্রজন্মকে আমরা আইন শেখাতে আমরা কেউ কেউ চাই না। বাংলাদেশে আইন শিক্ষার ক্ষেত্রে এজাতীয় হীনমন্যতা সবচেয়ে বড় প্রতিবন্ধক বলে আমি মনে করি। দেশের জন্য আইন শেখা দরকার। আমাদের দেশের নেতারা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল ছিলেন। বঙ্গবন্ধু ৭ই মার্চের ভাষণ আইন মেনেই দিয়েছেন। সেজন্য আজ সাদরে তা বিশ্বনন্দিত হয়েছে। আমি যদি আমার অধিকারই না জানি, তাহলে মানবাধিকার দিয়ে কি হবে? আমাকে বেসিক আইন জানতে হবে। কিন্তু আমরা তাতে উৎসাহ দেখাই না। আইন জানলে বাংলাদেশ সুশাসনের অধীনে চলে আসবে। প্রত্যেকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যেখানে সরকারের নিয়ন্ত্রণ আছে সেখানে আইন শিক্ষা চালু করা উচিত। আপনি বাংলা জানেন, ইংরেজি জানেন। অল্প বিস্তর ডাক্তারীও জানেন। অথচ আপনি এসব বিষয়ে উচ্চশিক্ষা লাভ করেন নি। জেনেছেন জীবনের প্রয়োজনে। এগুলোর পাশাপাশি আইন জানা দরকার ছিল। এরপর যিনি বেশি ভালো জানবেন, তিনি উচ্চ শিক্ষা গ্রহণ করবেন। যারা আইন ভালোভাবে জানবেন, তাদের দ্বারা দেশের কোনো ক্ষতি হবে না। আইন পড়তেই হবে। এর কোনো বিকল্প নেই।
পরিচিতি : এডভোকেট, বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট
মতামত গ্রহণ : মোহাম্মদ আবদুল অদুদ
সম্পাদনা : আশিক রহমান

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত