প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বঙ্গোপসাগর থেকে ২৩ জেলেকে অপহরণ, মুক্তিপণ দাবি

মোহাম্মদ আবদুল্লাহ মজুমদার : সুন্দরবন উপকূলে বঙ্গোপসাগর থেকে মুক্তিপণের দাবিতে ২৩ জন জেলেকে অপহরণ করেছে বনদস্যু বড় ভাই বাহিনী। অপহৃত জেলেদের ১৭ জন সাতক্ষীরা জেলার আশাশুনি উপজেলার চাকলা ও ছয়জন বাগেরহাট জেলার রামপাল উপজেলার বাসিন্দা।

রোববার বিকেলে দুবলা ফিসারমেন গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক কামাল উদ্দিন আহমেদ বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ২৩ জন জেলেকে অপহরণ করা হয়েছে। তাদের উদ্ধারে চেষ্টা চলছে।

র‌্যাব-৬ এর আপরেশন অফিসার জাহিদ হাসান জানান, দুবলার চর এলাকা থেকে বনদস্যু বড়ভাই বাহিনীর সদস্যরা শনিবার ২০ জেলেকে অপহরণ করেছে। তাদের আটকে রেখে মুক্তিপণ আদায়ের চেষ্টা চালাচ্ছে বনদস্যুরা। বিষয়টি জানার পর র‌্যাব তাদের উদ্ধারের জন্য কাজ শুরু করেছে।

সুন্দরবনের দুবলা ফিসারমেন গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক কামাল উদ্দিন আহমেদ জানান, সুন্দরবনের দুবলাচরের আলোরকোলের শুঁটকি পল্লীতে অবস্থান করা জেলেরা শুক্রবার রাতে বঙ্গোপসাগরের ৬ কিলোমিটার গভীরে গিয়ে জাল ফেলে মাছ ধরছিলেন।

এ সময় বনদস্যু বাহিনী বড় ভাই ও রফিক বাহিনীর সদস্যরা সেখানে হামলা চালিয়ে ২৩ জেলেকে মুক্তিপণের দাবিতে অপহরণ করে সুন্দরবনের গহীন অরণ্যে নিয়ে যায়।

বনদস্যুরা এখন দু’টি মোবাইল ফোনের নম্বর থেকে দুবলা ফিশারমেন গ্রুপের নেতাদের কাছে অপহৃত জেলেদের জনপ্রতি দুই লাখ টাকা করে ৪৬ লাখ টাকা মুক্তিপণ চাচ্ছে।

দুটি বনদস্যু বাহিনীর হাতে ২৩ জেলে আপহরণের বিষয়টি আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে জানানো হয়েছে বলে সুন্দরবনের দুবলা ফিসারমেন গ্রুপ জানিয়েছে।

বাগেরহাটের পুলিশ সুপার পংকজ চন্দ্র রায় বলেন, অপহরণের বিষয়টি জানা নেই। তবে দুবলা ফিসারমেন গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক কামাল উদ্দিন বনদস্যুদের দুটি মোবাইল ফোন নম্বর এসএমএস করে লোকেশন জানানোর অনুরোধ করেছেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত