প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

১০১ রানে থেমে গেলাে সিলেটের চাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক : সিলেট সিক্সার্স অধিনায়ক নাসির হোসেনের কাছে ১০১ রানই অনেক মনে হওয়ার কথা। ১৩ ওভারেই দলটি ৯ উইকেট হারিয়েছিল। স্কোরবোর্ডে তখন মাত্র ৫৩ রান। সেখান থেকে দলটি ২০ ওভার ব্যাট করে অলআউট না হয়ে ১০১ রান করেছে। পুরো কৃতিত্ব আবুল হাসান ও তাইজুল ইসলামের ৪৮ রানের দশম উইকেট জুটির। শের-এ-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে এবারের বিপিএলে নিজের প্রথম ম্যাচেই ৪ উইকেট পেলেন লেগস্পিনার শহিদ আফ্রিদি। আরেক স্পিনার সুনিল নারিন নিয়েছেন ৩ উইকেট। তাদের ঘূর্ণিতেই এমন দুর্দশা সিলেটের।

টস জিতে বোলিং করতে এসে প্রথম থেকেই সিলেটের ব্যাটসম্যানদের চেপে ধরেন ঢাকার বোলাররা। ইনিংসের দ্বিতীয় থেকে ষষ্ঠ প্রতিটি ওভারেই একটি করে উইকেট হারিয়েছে সিলেট। প্রথম আঘাত হানেন বাঁহাতি পেসার আবু হায়দার রনি। দলীয় ৮ রানে তিনি ফেরত পাঠান ওপেনার উপুল থারাঙ্গাকে। পরের ওভারেই সাব্বির রহমানকে ফিরিয়ে ম্যাচে প্রথম উইকেট পান নারিন। পরের দুই ওভারে যথাক্রমে একটি করে উইকেট পান রনি ও নারিন। ষষ্ঠ ওভারে এসে এবারের বিপিএলে প্রথম ম্যাচ খেলতে নামা আফ্রিদি আউট করেন সিলেট অধিনায়ক নাসির হোসেনকে। ৩৩ রানে পাঁচ উইকেট হারানো সিলেট ৫৩ রানে হারায় ৯ উইকেট। এরপর আবুল হাসান ও তাইজুল ইসলাম অপরাজিত দশম উইকেট জুটিতে তোলেন ৪৮ রান। তাদের জুটিই সিলেটকে ১০০ রানের গন্ডি পার করায়। হাসান ৩০ ও তাইজুল ১৬ রানে অপরাজিত থাকেন। আফ্রিদি মাত্র ১২ রান খরচায় পান চার উইকেট। নারিন ১০ রানের বিনিময়ে পান তিন উইকেট। বাংলাদেশি যুবা রনি পেয়েছেন ২ উইকেট।

১০২ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নামবে ঢাকা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর-

সিলেট সিক্সার্স : ১০১/৯ (২০ ওভার) (গুনাথিলাকা ১৫, থারাঙ্গা ১, সাব্বির ১, নাসির ১০, হুইটলি ৬, নুরুল হাসান ৮, হাসারাঙ্গা ৮, ব্রেসনান ২, হাসান ৩০*, শরীফ ০, তাইজুল ১৬*; মোসাদ্দেক ০/৭, রনি ২/২৩, নারিন ৩/১০, আফ্রিদি ৪/১২, সাকিব ০/১০, শহীদ ০/২১, ডেলপোর্ট ০/১০, খালেদ ০/৭)।

 

 

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ