প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ঢাকা-কলকাতা ট্রেন: সীমান্তে থাকছে না চেকিং দুর্ভোগ

ডেস্ক রিপোর্ট: পূরণ হলো ঢাকা-কলকাতা মৈত্রী এক্সপ্রেসে চলাচলকারী যাত্রীদের দীর্ঘদিনের চাওয়া। এখন আর দর্শনা ও গেদেতে চেকিং করাতে হবে না। ৮ ঘণ্টায় যাওয়া যাবে কলকাতা। শুক্রবার সকালে ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট স্টেশনে এই এন্ড টু এন্ড সেবা উদ্বোধন করেন রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক।সূত্র: ইনডিপেনডেন্ট টিভি

২০০৮ সালে চালু হয় ঢাকা-কলকাতা সরাসরি ট্রেন যোগাযোগ। যাত্রীদের সাড়াও মেলে। কিন্তু দুদেশের সীমান্ত স্টেশন দর্শনা ও গেদেতে ট্রেন থেকে লাগেজসহ চেকিং করাতে দুর্ভোগের মধ্যে পড়তে হয় যাত্রীদের। এতে সময় লাগত প্রায় তিন ঘণ্টা।

এই ঝামেলা আর থাকছে না। ঢাকার যাত্রীদের প্রয়োজনীয় চেকিং হবে বনানী ক্যান্টনমেন্টে। এরপর আট ঘণ্টায় সরাসরি কলকাতা।

প্রথম দিনেই অবশ্য চেকিংয়ে খানিকটা অসুবিধায় পড়েন যাত্রীরা। ক্যান্টনমেন্ট স্টেশনে স্থান স্বল্পতায় দেখা গেছে এই সেবার ঘাটতি।

রেলমন্ত্রী জানান, বাড়ানো হবে স্টেশনের পরিধি। নিশ্চিত করা হবে নিরাপত্তা।

মৈত্রী এক্সপ্রেসে আসন ৪৫৬টি। শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত এই ট্রেনে কেবিনে আসন প্রতি ভাড়া প্রায় ১৬০০ ও চেয়ারে ৯৬০ টাকা। সঙ্গে গুনতে হবে ১৫ শতাংশ ভ্যাট ও ৫০০ টাকা ভ্রমণ কর।

আনিস/

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ