প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রোহিঙ্গা শরণার্থী এলাকায় ছেলেধরা বিষয়ে জাতিসংঘের সতর্কতা

পরাগ মাঝি : কক্সবাজারে অস্থায়ী শরণার্থী শিবিরগুলোতে কয়েক হাজার শিশু বাবা-মা ও আত্মীয়-স্বজন ছাড়াই বিগত দু’মাস ধরে অবস্থান করছে। তাই এসব হতভাগ্য শিশুদের দিকে এবার নজর পড়েছে শিশু পাচারকারীদের। তাই শিশু পাচারকারী চক্রের বিরুদ্ধে সতর্ক অবস্থান নিতে কর্তৃপক্ষকে পরামর্শ দিয়েছে জাতিসংঘ।

কক্সবাজারের কুতুপালং ক্যাম্প সহ অন্যান্য শিবিরে প্রায় ১৮০০ শিশু তাদের বাবা-মা সঙ্গে মিলিত হয়েছে বলে শরণার্থী শিবির তথ্যকেন্দ্র থেকে জানানো হয়েছে। মিয়ানমার সেনাবাহিনীর গণহত্যা অগ্নি সংযোগ এবং ধর্ষণের আতঙ্কে ৬ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা সীমান্ত পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করেছে। আর এসব অনুপ্রবেশকারীর প্রতি ১০ জনের মধ্যে ৬ জনই শিশু। তাই শরণার্থী শিবিরগুলো শিশুপাচারকারীদের জন্য উর্বর ভূমি হয়ে উঠেছে।

জাতিসংঘের ইউনিসেফের শিশু সুরক্ষা বিভাগের প্রধান জিন লিবি বলেছেন, ‘বড় বড় শহরগুলোতে রোহিঙ্গা মেয়ে শিশুদের কাজের লোভ দেকানো হচ্ছে।’

জাতিসংঘ বলেছে, ‘শুধুমাত্র শিশু পাচারকারীরাই রোহিঙ্গা শরণার্থীদের জন্য হুমকি নয়, অনেক বয়ষ্ক রোহিঙ্গাও তাদের ছেলে মেয়েদের টাকার বিনিময়ে চুক্তি ভিত্তিক কাজে নিয়োগ করছে।’ ইউরো নিউজ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ