প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মিশরের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন খালেদ আলী

মুফতি আবদুল্লাহ তামিম: প্রেসিডেন্ট পদের জন্য লড়বেন মিশরীয় মানবাধিকার আইনজীবী ও বিরোধীদলীয় নেতা খালেদ আলী। সম্প্রতি ২০১৮ সালে প্রেসিডেন্ট পদে দাঁড়িয়ে প্রেসিডেন্ট আল-সিসিকে মোকাবেলা করার চ্যালেঞ্জ ঘোষণা করেছেন তিনি। আগামী বছরে প্রেসিডেন্ট পদে নির্বাচন দাঁড়িয়ে এই প্রেসিডেন্টকে হারাতে আশাবাদি খালেদ আলী।

একটি সংবাদ সম্মেলনে আলী জানান, তিনি একটি সমাজতান্ত্রিক সমাজ ব্যবস্থা চালু করবেন, যেখানে তিনি উদ্যোগ গ্রহণ করবেন ব্যক্তিগত অধিকার ও ব্যক্তি স্বার্থের উর্ধ্বে উঠে সন্ত্রাসবাদ মোকাবেলা করার।

খালেদ আলী আরো বলেন, ‘আমরা প্রত্যাশা করছি যে ক্ষমতায় গেলে দমন-নির্যাতন নিপীড়ণ বন্ধ করা হবে। আমরা মিশরীয় জনগণের প্রতিনিধিত্ব করার জন্য নিজেদেরকে প্রস্তুত করছি। এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছি একটি সুন্দর দেশ উপহার দেয়ার লক্ষ্যে। আমরা আতঙ্কিতভাবে দাঁড়াবো না। আমরা আশা নিয়ে ক্ষমতার লড়াই করবো। আমরা কখনোই অপরাধীদের ছাড়বো না।’

অন্যদিকে , দিনকয়েক আগে কায়রোর একটি আদালত থেকে অপহরণের অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছিল আলিকে । সেই কারণে তিনি তিন মাসের জেলও খেটেছেন । তবে অভিযোগ অস্বীকার করে আলী বলেছিলেন, তিনি যা বলছেন তা রাজনৈতিকভাবে অনুপ্রাণিত করার জন্যই। তারপরও যদি তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয় তাহলে তিনি দোষী হবে না।

উল্লেখ্য,চার বছর আগে মুসলিম ব্রাদারহুডের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ মুরসির ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার সময় সাবেক সামরিক কমান্ডার রাষ্ট্রপতি আবদেল ফাত্তাহ আল-সিসীর বিরুদ্ধে প্রচারণা চালানোর জন্য আলী প্রথম ব্যক্তি হিসেবে সাব্যস্ত করা হয়। ইউরো নিউজ

সর্বাধিক পঠিত