প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিতর্কীত বিবাহ আইনে স্বাক্ষর করলেন এরদোগান

মরিয়ম চম্পা : বিতির্কীত একটি বিবাহ আইনে স্বাক্ষর করলেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তৈয়ব এরদোগান। এ অনুযায়ী দেশটির ধর্মীয় নেতাদের নির্ধারিত রীতি অনুযায়ী বিবাহ সম্পন্ন হবে। দেশটির কযেকটি ধর্মনিরপেক্ষ সংস্থা এমন আইনের সমালোচনা করেছে। এ ধরণের আইন প্রচলন হলে দেশটিতে বাল্য বিবাহের পরিমাণ বেড়ে যেতে পারে বলেও ধারণা করা হচ্ছে।

গত মাসে প্রেসিডেন্ট এরদোগান এ বিষয়ে একটি সরকারী গেজেট পাশ করার পর ব্যপক বিক্ষোভের মুখে সংসদ কর্তৃক তাৎক্ষণিক ভেঙ্গে দেওয়া হলেও সেটি এখন কার্যকর হচ্ছে বলে জানিয়েছে একটি সূত্র।

এই আইনে বলা হয়েছে, কেবলমাত্র দেশটির মুফতিরাই বিবাহ অনুষ্ঠান ও বিবাহ নিবন্ধন সম্পন্ন করবেন। একই সাথে রাষ্ট্রীয় নিযুক্ত সিভিল সার্ভিসরাও এক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। দেশটির ধর্মীয় নেতা মুফতিদের সংগঠন ডায়ানেটের মাধ্যমে অন্যান্য ধর্মাবলম্বীদের পূজা পালন সংক্রান্ত তদারকিতে ধর্মীয় নেতাদের নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

১৯২৩ সালে তুর্কি প্রজাতন্ত্রের প্রতিষ্ঠাতা মোস্তফা কামাল আতার্তুকের নেতৃত্বে গঠিত সংবিধানে তুরস্ককে একটি বৃহত্তর মুসলিম জাতি হিসেবে ঘোষণা দেওয়া হলেও বর্তমানে এটি একটি ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্র হিসেবে পরিচিত।

দেশটির বিরোধী দল রিপাবলিকান পিপলস পার্টির (সিপিপি) সংসদ সদস্য সেজগিন তানরিকুলু বলেন, জাস্টিস এন্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টি (একেপি) সম্প্রতি যে পদক্ষেপ নিয়েছে সেটা রাষ্ট্রীয় ধর্মনিরপেক্ষতার স্তম্ভকে ক্ষতিগ্রস্ত করবে এবং এটি দেশটির সাধারণ জনগনকে ধর্মনিরপেক্ষতা থেকে অনেক দূরে সরিয়ে দেবে। আরব নিউজ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ