প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সর্বকালের সর্বভালো পরিবেশে কাজ করছে সাংবাদিকরা: তথ্যমন্ত্রী

রাশিদ রিয়াজ : তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, সরকারের হাতে কোনো সাংবাদিক নিহত বা নির্যাতিত হয়নি। সরকারের বাইরের অপশক্তি বা জঙ্গি দ্বারা তারা আক্রান্ত হচ্ছে। বিচারহীনতার সংস্কৃতিতে বাংলাদেশ নেই। বৃহস্পতিবার বিবিসি বাংলাকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে তথ্যমন্ত্রী একথা বলেন।

ইনু বলেন, বাংলাদেশে সর্বকালের সর্বভালো পরিবেশে সাংবাদিকরা কাজ করছে। রাষ্ট্রের সঙ্গে সাংবাদিকদের কোনোই দ্বন্দ্ব নেই। ঝগড়া নেই বিবাদ নেই। সাংবাদিকদের ওপর অতর্কিত হামলা, অতর্কিত হামলাতো ইংল্যান্ডও ঠেকাতে পারে না। বেশিরভাগ হামলার পর মামলা হয়েছে, খুনীদের আমরা চিহ্নিত করতে পেরেছি। সাম্প্রতিককালে এরকম হামলা হচ্ছে না।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের প্রশাসন, আইন শৃঙ্খলা বাহিনী অথবা সশস্ত্র বাহিনীর হাতে কোনো সাংবাদিক নির্যাতিত হয়নি এবং নিহত হননি। যারা মারা গেছেন তারা চরমপন্থী, বিভিন্ন রকম মাদকের সঙ্গে জড়িত, এধরনের অসামাজিক ব্যক্তি বা গ্যাংএর কারণে তাদের আক্রমণ করে হয়ত হত্যা করেছে। যেহেতু সেই সাংবাদিক মাদকের বিরুদ্ধে, স্মাগলিংএর বিরুদ্ধে প্রতিবেদন তৈরি করেছিল। সরকারের বাইরে যারা অপশক্তি তারা আক্রমণটা করেছে নইলে জঙ্গি দ্বারা আক্রান্ত হয়েছে। সেই ক্ষেত্রে প্রত্যেকটা মামলা দায়ের করা হয়েছে, মামলাগুলো বিচারাধীন রয়েছে। কিছু সাজা হওয়ার প্রক্রিয়ায় গিয়েছে।

সাংবাদিকদের পেশাগত দায়িত্ব পালন কালে রাষ্ট্রের কাছ থেকে নিরাপত্তা পান না বা মফস্বলে যারা সাংবাদিকতা করে তাদের অনেক সময় রক্ষা করা যায় না, এ প্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে ৬’শর বেশি দৈনিক, ২৮’শর বেশি সাপ্তাহিক প্রকাশিত হয়ে থাকে, উপজেলা ও জেলা পর্যায়ে দৈনিক প্রকাশিত হচ্ছে। এসব পত্রিকা সরকারের সমালোচনা সহ বিভিন্ন সামাজিক খবরাখবর পরিবেশন করে থাকে। সাংবাদিকরা পেশাগত দায়িত্ব পালন করছে না এ প্রতিবেদন সঠিক নয়।

কিন্তু সাংবাদিক হত্যাকা- মামলায় বারবার আইও পরিবর্তন করায় মামলাগুলো দীর্ঘসূত্রীতায় পড়ে যায়, এ প্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী বলেন, এব্যাপারে আমি সজাগ রয়েছি, আইও সরকার কর্তৃপক্ষ করে না। বাদিপক্ষ অর্থাৎ যিনি ক্ষতিগ্রস্ত বা সে পরিবার যদি মনে করে যে যথাযথ তদন্ত হচ্ছে না, সেই পরিবারকে সুরক্ষা দেওয়ার জন্যে আইও পরিবর্তন করা হয়ে থাকে। তদন্তে যাতে কেউ শৈথিল্য না দেখাতে পারে, ক্ষেত্রবিশেষে আইও পরিবর্তন করা হয়ে থাকে।

পেশাগত দায়িত্বপালনকালে সাংবাদিকদের ওপর হামলা হলে বিচার হয় না যেসব দেশে, সেরকম সবচেয়ে খারাপ দেশগুলোর তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান এখন দশম। কমিটি টু প্রটেক্ট জার্নালিস্ট বা সিপিজে নামের একটি আন্তর্জাতিক সংগঠনের প্রকাশিত সূচকে এমনটাই বলা হয়েছে। সিপিজে বলছে গত এক দশকে পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে বাংলাদেশে ৭ জন সাংবাদিককে হত্যা করা হয়। তাহলে কি বাংলাদেশে বিচারহীনতার একটি সংস্কৃতি শুরু হয়েছে যে সাংবাদিকদের মারধর করলে বা তাদের গায়ে হাত তুললে কিছুই হয় না, বিবিসি বাংলার এমন প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেন, সাংবাদিক নিহত হয়েছে তথ্যটি সঠিক কিন্তু বিচারহীনতার সংস্কৃতি থেকে বাংলাদেশ বেরিয়ে এসেছে। সাংবাদিককে যারা হত্যা করে তাদের আইনগত কোনো সুরক্ষা দেওয়া হয়নি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ