শিরোনাম

প্রকাশিত : ০৫ আগস্ট, ২০২২, ০৫:১১ বিকাল
আপডেট : ০৬ আগস্ট, ২০২২, ০৮:৫৭ রাত

প্রতিবেদক : এম. মোশাররফ হোসাইন

তাইওয়ানকে ঘিরে ফেলেছে চীন, রেড অ্যালার্ট জারি

চীন

এম. মোশাররফ হোসাইন : এম. মোশাররফ হোসাইন : দফায় দফায় সতর্কবার্তা উপেক্ষা করে গত মঙ্গলবার মার্কিন হাউস স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরকে কেন্দ্র করে চরমে উঠেছে যুক্তরাষ্ট্র, চীন ও তাইওয়ানের উত্তেজনার পারদ। এবার কার্যত তাইওয়ানকে ঘিরে ধরে নজিরবিহীন ও ভয়াবহ সামরিক মহড়া শুরু করেছে চীন। বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় বেলা ১২টা থেকে চীন এই মহড়া শুরু করে। জল, স্থল ও আকাশে চলছে এই মহড়া। এই পরিস্থিতিতে গোটা তাইওয়ানে রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে।

তাইওয়ান প্রণালীর উপর দিয়ে দেশটির আকাশসীমা লঙ্ঘন করে একের পর এক উড়ে যাচ্ছে চীনা যুদ্ধবিমান। যুদ্ধ জাহাজসহ অত্যাধুনিক যুদ্ধাস্ত্র দিয়ে কার্যত তাইওয়ানকে ঘিরে ফেলেছে চীন। তাইওয়ানের ২০ কিলোমিটারের মধ্যে রাখা হয়েছে সারি সারি যুদ্ধজাহাজ।

চীন যেভাবে আক্রমনাত্মক মহড়া শুরু করেছে, তাতে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে তাইওয়ান। নৌ ও স্থলসেনারা লাগাতার গোলাবারুদ ছুঁড়ছে বলে অভিযোগ করেছে তারা। তাইওয়ান প্রণালীতে নিক্ষেপ করা হচ্ছে একের পর এক ব্যালিস্টিক মিসাইল। সামান্য লক্ষ্যভ্রষ্ট হলেই তা তাইওয়ানের মূল ভূখণ্ডে আঘাত হানতে পারে। তাইওয়ান প্রণালী চীনের মূল ভূখণ্ড এবং তাইওয়ানকে আলাদা করেছে। মহড়ায় নেমেছে চীনের স্থলসেনাও। চীন লিবারেশন আর্মি অবশ্য জানিয়েছে, এটি তাদের রুটিন মহড়া। মূল ভূখণ্ড থেকে সমুদ্র লক্ষ্য করে মিসাইল ছোঁড়া হচ্ছে।

তাইপেই জানিয়েছে, তাইওয়ানের উপর দিয়েও দফাফ দফায় মিসাইল ছুড়ছে চীন। তাইওয়ান পার করে যা সমুদ্রের পানিতে গিয়ে পড়েছে। জাপানের অভিযোগ, সমুদ্রে অবস্থিত জাপানের এক্সক্লুসিভ ইকনমিক জোনে প্রপেলড মিসাইল ছুঁড়েছে চীন। বস্তুত, তাইওয়ান থেকে জাপানে গেছেন ন্যান্সি পেলোসি। তার যাত্রার অব্যবহিত পরেই ওই মিসাইল ছুঁড়েছে চীন। বুঝিয়ে দিয়েছে, পেলোসির তাইওয়ান সফরের জবাবেই তারা একাজ করছে।

মার্কিন কংগ্রেসের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি গত মঙ্গলবার তাইওয়ান সফরে গিয়েছিলেন। গত ২৫ বছরে এই পদমর্যাদা বা তার উর্ধ্বের কোনও মার্কিন রাজনীতিক তাইওয়ান সফরে যাননি। বস্তুত, তাইওয়ানের সঙ্গে আমেরিকার সুসম্পর্ক থাকলেও দুই দেশের মধ্যে সরকারিভাবে কোনও কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই। তাইওয়ান স্বশাসিত একটি অঞ্চল। চীনের একাধিপত্য তারা মেনে নেয় না। গত কয়েক বছরে চীন তাইওয়ান এবং হংকংয়ের উপর চাপ বাড়িয়েছে। এই পরিস্থিতিতে ন্যান্সি পেলোসি তাইওয়ান সফর করেন।

ন্যান্সি পেলোসি তাইওয়ান এলে তার ফল ভালো হবে না বলে আগেই সাবধান করেছিল চীন। চীনের সেই সতর্কবার্তা উপেক্ষা করে পেলোসি তাইওয়ান যান। তারপরেই ভয়াবহ সেনা মহড়া শুরু করেছে চীন। তাইওয়ানের কার্যত নাকের ডগায় একাজ করা হচ্ছে। সূত্র: রয়টার্স

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়