Skip to main content

যশোরের যশ খেজুরের রস নানা কারণে হারাচ্ছে নিজস্ব ঐতিহ্য

‘যশোরের যশ, খেজুরের রস’ বহুল প্রবাদটি হারিয়ে যেতে বসেছে। নির্বিচারে খেজুর গাছ কাটাসহ নানাকারণে এই অঞ্চলের খেজুরের রস আর তা থেকে তৈরি গুড় হারিয়েছে নিজস্বতা। তবে এ অবস্থার উত্তরণে নতুন চারা রোপনসহ বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছে কৃষিবিভাগ। সূত্র: ইনডিপেন্ডেন্ট টিভি।

যশোরের ঐতিহ্যকে যুগ যুগ ধরে দেশে-বিদেশে সমৃদ্ধ করে আসছে খেজুরের রস ও গুড়। তুমুল জনপ্রিয়তা থাকায় এখানে গড়ে উঠেছে দেশের সবচেয়ে বড় খেজুর গুড়ের বাজার। এ বছর আগেভাগেই শীত শুরু হওয়ায় রস সংগ্রহের কাজ শুরু হয়েছে আগেই। তাই ব্যস্ত সময় পার করছেন খেজুর-চাষিরা। তবে তারা পর্যাপ্ত গাছি ও জ্বালানী সংকটের কথা জানিয়েছেন। 

পাশাপাশি ব্যাপকহারে খেজুর গাছ কাটায় উদ্বেগ জানিয়ে তারা বলছেন, সরকারের সহায়তা পেলে গুড় রপ্তানি করে বিপুল পরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা আয় করা সম্ভব।

খেজুরের রস সংগ্রহের আধুনিক পদ্ধতি আবিষ্কারের গবেষণা চলছে বলে জানালেন কৃষি কর্মকর্তারা। 

যশোর কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের কর্মকর্তা এস এম খালিদ সাইফুল্লাহ বলেন, রপ্তানিবৃদ্ধিতে ব্যক্তি, বিভিন্ন সংস্থা ও রপ্তানীকারকের সহযোগিতা লাভ করছি।

চলতি মৌসুমে যশোরে ২ হাজার মেট্রিকটন খেজুরের গুড় উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে।

অন্যান্য সংবাদ