Skip to main content

ধামরাইয়ে পারিবারিক কলহের জেরে স্বামীর যৌনাঙ্গ কাটলেন স্ত্রী

Article Highlights

ঢাকার ধামরাইয়ে পারিবারিক কলহের জেরে স্বামীর যৌনাঙ্গ কেটে ফেলেছে স্ত্রী। গুরুতর আহত অবস্থায় স্বামীকে সাভারের এনামে মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদিকে খবর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য স্ত্রীকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার (১২ জানুয়ারী) ভোরে ধামরাইয়ের বালিথা গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

ঢাকার ধামরাইয়ে পারিবারিক কলহের জেরে স্বামীর যৌনাঙ্গ কেটে ফেলেছে স্ত্রী। গুরুতর আহত অবস্থায় স্বামীকে সাভারের এনামে মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদিকে খবর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য স্ত্রীকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার (১২ জানুয়ারী) ভোরে ধামরাইয়ের বালিথা গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

ধামরাই থানার এসআই মলয় কুমার সাহা জানান, ধামরাই উপজেলার বালীথা গ্রামের গার্মেন্টস কর্মী সুমন মিয়া দশ বছর আগে গার্মেন্টস কর্মী মর্জিনা বেগমকে বিবাহ করেন তাদের ঘরে হাসান নামের সাত বছরের এক ছেলে সন্তানও রয়েছে । প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে সুমন মিয়া দীর্ঘ দিন ধরে অন্য একটি মেয়ের সাথে পরকীয়ার সম্পর্ক রয়েছে। স্ত্রী বারবার বাঁধা দিলেও সুমন সম্পর্ক চালিয়ে যায়। পরে ক্ষোভের বসে ঘুমন্ত অবস্থায় স্বামীর যৌনাঙ্গ কেটে ফেলে। এ ঘটনায় অভিযোগের ভিত্তিতে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান পুলিশ।

অন্যান্য সংবাদ