Skip to main content

অভিনেতা ছিলাম সত্য তবে রাজনীতি আমার রক্তে বললেন ফারুক

Article Highlights

পেশা হিসেবে অভিনয় করেছি সত্য তবে রাজনীতি আমার রক্তে। আমি ছাত্র রাজনীতি করেছি। বঙ্গবন্ধুর সাথে আমার সখ্যতা ছিলো। আমি বঙ্গবন্ধুর সাথে ছয় দফা আন্দোলন, আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলা, উনসত্তরের গণঅভূথ্যান, সত্তরের নির্বাচন ও পরে একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধ সবগুলোর সাথে যুক্ত ছিলাম। আমি আওয়ামী লীগের একজন সৈনিক।

পেশা হিসেবে অভিনয় করেছি সত্য তবে রাজনীতি আমার রক্তে। আমি ছাত্র রাজনীতি করেছি। বঙ্গবন্ধুর সাথে আমার সখ্যতা ছিলো। আমি বঙ্গবন্ধুর সাথে ছয় দফা আন্দোলন, আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলা, উনসত্তরের গণঅভূথ্যান, সত্তরের নির্বাচন ও পরে একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধ সবগুলোর সাথে যুক্ত ছিলাম। আমি আওয়ামী লীগের একজন সৈনিক। গতকাল শুক্রবার ডিবিসি টিভিতে এক আলোচনায় এসব কথা বলেন আকবর হোসেন পাঠান ফারুক এমপি।

ফারুক আরো বলেন, পচাত্তরে বঙ্গবন্ধু হত্যার পরে আমি সাহস করে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট নামে একটি সংগঠন করি এবং আমি এর প্রতিষ্ঠাতা সিনিয়র সহসভাপতি ছিলাম। আমার স্বপ্ন ছিলো বঙ্গবন্ধুর আদর্শের কথা বলা। তবে দল মনে করেছে আমি জনপ্রতিনিধি হই, তাই হয়েছি। এটা অনেক বড় দায়িত্বের কাজ। আমি জনগণের হয়ে কাজ করতে চাই। তাদের উন্নয়ন অগ্রগতির জন্য কাজ করতে চাই।

ফারুক আরো বলেন, যে দেশে সন্ত্রাস এবং মাদক থাকে সে দেশ কখনো উন্নয়ন করতে পারে না। আমি পুরোপুরি সন্ত্রাস ও মাদকের বিরুদ্ধে কাজ করতে চাই। তবে আমি একটি কালচারাল রেভ্যুলেশন ঘটাতে চাই যাতে কেউ সন্ত্রস বা মাদকের দিকে ঝুঁকতেই না পারে। তারপরেও যদি কেউ এতে যুক্ত হয় তবে কারো মাফ নাই।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর চেখে শেখ হাসিনা দেখেন এ দেশের উন্নয়ন। আমাকে তিনি উন্নয়নের কাজে শরিক করেছেন। আমি বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক হওয়ায় উন্নয়নের এ অগ্রযাত্রাকে আমি সামনে এগিয়ে নিতে চাই।